ফনেটিক ইউনিজয়
ঝুঁকির মুখে রবীন্দ্র কুঠিবাড়ি রক্ষা বাঁধ
এসএম জামাল, কুষ্টিয়া

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে পদ্মা নদীতে তীব্র ভাঙনের কারণে ফসলি জমি বিলীন হওয়ার পাশাপাশি ঝুঁকিতে পড়েছে সদ্য নির্মিত শিলাইদহ রবীন্দ্র কুঠিবাড়ি রক্ষা বাঁধ।
সরেজমিনে দেখা গেছে, কুঠিবাড়ি রক্ষা প্রকল্পের যে বাঁধ রয়েছে, তার একটি অংশের সামনের দিকে ভাঙন দেখা দিয়েছে। সেখানে ব্লক বসানোর জন্য যে মাটি তোলা হয়েছে, তার বেশির ভাগ বিলীন হয়ে গেছে। পানি বাড়লে এ অংশের বাঁধ ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।
পাউবো সূত্র জানায়, ২০১৩ সালের দিকে কুঠিবাড়িসংলগ্ন পদ্মা নদী ভেঙে কুঠিবাড়ির দিকে আসতে শুরু করে। এর পর থেকে পানি উন্নয়ন বোর্ড কুঠিবাড়িসহ কয়া ও শিলাইদহ ইউনিয়নের গ্রাম রক্ষায় বাঁধ নির্মাণের পরিকল্পনা করে। পরে চলতি বছর ১৬৭ কোটি টাকা ব্যয়ে সেখানে বাঁধ নির্মাণ করা হয়। ওয়েস্টার্ন ইঞ্জিনিয়ারিং প্রাইভেট লিমিটেড নামে একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান এ কাজ বাস্তবায়ন করে।
স্থানীয় শিলাইদহ ইউপি চেয়ারম্যান সালাহ উদ্দিন তারেক বলেন, বাঁধ নির্মাণে কিছু অনিয়ম দেখেছি। বিষয়গুলো পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের নজরে নেয়ার অনুরোধ করেছি।
এ বিষয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ড কুষ্টিয়ার নির্বাহী প্রকৌশল আরিফুজ্জামান খান বলেন, প্রকল্পের সুলতানপুর অংশে ২ হাজার ৭২০ মিটার ও শিলাইদহ অংশে এক হাজার মিটার সংরক্ষণ বাঁধ নির্মাণ সম্পন্ন হয়েছে। কিন্তু দুই অংশের মাঝখানে ১ হাজার ৫৩০ মিটার কাজ না হওয়ায় নতুন করে সৃষ্ট নদীভাঙন নির্মিত বাঁধ ও শিলাইদহ কুঠিবাড়িকে ঝুঁকির মধ্যে ফেলেছে। অসম্পূর্ণ দেড় কিলোমিটার বাঁধ নির্মাণ করা গেলে আপাতত গ্রামসহ কুঠিবাড়ি রক্ষা বাঁধ পুরোপুরি ঝুঁকিমুক্ত থাকত।

Disconnect