বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রজ্ঞাপন

টাকায় লেখা, সিল ও স্ট্যাপলিং করা যাবে না

এখন থেকে টাকার ওপর লেখালেখি, সিল ও স্ট্যাপলিং করা যাবে না বলে নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। নোটের বৈশিষ্ট্য ও সৌন্দর্য ঠিক রাখতে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

আজ সোমবার বাংলাদেশ ব্যাংকের ডিপার্টমেন্ট অব কারেন্সি ম্যানেজমেন্ট থেকে প্রকাশিত এক প্রজ্ঞাপন সব তফসিলি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহীদের কাছে পাঠানো হয়েছে।

সাধারণত, ব্যাংকের ক্যাশ কাউন্টারে টাকা জমার পর হিসাব রাখার সুবিধার জন্য ব্যাংকাররা নোটের ওপর সিল-সই দেন এবং নোটের সংখ্যা লিখে থাকেন। এখন থেকে এ কাজ থেকে বিরত থাকতে হবে সব ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানকে। 

এর কারণ হিসেবে প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, কারণে-অকারণে নোটের ওপর লেখা এবং সিল বা সই করার কারণে একটি নোট বাজারে ছাড়ার অল্প দিনের মধ্যে ব্যবহারের যোগ্যতা হারাচ্ছে। ফলে ওই টাকা নষ্ট করে ফের বাজারে ছাড়তে গিয়ে সরকারের নোট ছাপানোর খরচ বেড়ে যাচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে এ প্রবণতা বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়, নতুন ও পুনঃপ্রচলনযোগ্য নোট প্যাকেট করার সময় ব্যাংকের মুদ্রিত ফ্লাইলিফে ব্যাংক শাখার নাম, সিল, নোট গণনাকারীর ও প্রতিনিধিদের সই ও তারিখ আবশ্যই দিতে হবে। 

প্রজ্ঞাপনে আরো বলা হয়, তফসিলি ব্যাংক কর্তৃক এক হাজার টাকার নোট ছাড়া অন্য কোনো নোটে পিন (স্ট্যাপলিং) মারা বা ছিদ্র করা যাবে না। এছাড়া সব নতুন ও পুনঃপ্রচলনযোগ্য নোট ২৫ মিলিমিটার থেকে ৩০ মিলিমিটার প্রশস্থ পলিমার টেপ অথবা পলিমারযুক্ত পুরু কাগজের টেপ দ্বারা ব্যান্ডিং করতে হবে। 

মন্তব্য করুন

© 2019 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh