ফনেটিক ইউনিজয়
বদলে যাচ্ছে বিএফডিসি
মান্নাফ সৈকত
ভেঙে ফেলা হবে বিএফডিসির এই প্রবেশপথ
----

নতুন করে সাজবে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন সংস্থা (বিএফডিসি)। একই সঙ্গে বিএফডিসি নামটি পাল্টে হতে চলেছে বিএফডিসি কমপ্লেক্স। পরিবর্তন হতে যাচ্ছে এর অবকাঠামোতে। আধুনিকায়নের ধারায় এবার বিএফডিসির আঙিনায় তেরি হচ্ছে বহুতল ভবন। সেখানে নির্মিত হবে একাধিক সিনেপ্লেক্স, তিন তারকার আবাসিক হোটেল, শপিংমলসহ চলচ্চিত্র নির্মাণের অত্যাধুনিক সব সুযোগ-সুবিধা। এফডিসির  ভেতরের ৯৪ কাঠা জমির ওপর তৈরি হবে ১২ তলা এই ভবন। নতুন এই ভবন নির্মাণে ব্যয় ধরা হয়েছে ৩৫৩ কোটি ৩৫ লাখ টাকা। আর নির্মাণে সময় লাগবে তিন বছর। এরই মধ্যে নতুন ভবনের নকশাসহ পুরো প্রকল্প জমা দেওয়া হয়েছে তথ্য মন্ত্রণালয়ে। ভবন নির্মাণের জন্য ভাঙতে হবে বিএফডিসির ৩ ও ৪ নম্বর শুটিং ফ্লোর, পরিত্যক্ত দুটি সম্পাদনা ভবন ও পুলিশ ফাঁড়ি।
বিএফডিসি কর্তৃপক্ষ জানায়, তিনটি বেসমেন্টসহ ১২ তলা ভবনে থাকছে তিনটি শুটিং ফ্লোর, চারটি প্রদর্শনী কক্ষ নিয়ে তৈরি একটি মাল্টিপ্লেক্স, শিশুদের বিনোদনের জন্য নির্দিষ্ট জায়গা, বিশেষ শিশুদের জন্য খেলার জায়গা এবং ফুড কর্নার। ভবনে তিনতলাজুড়ে থাকছে আবাসিক হোটেল। বিভিন্ন বেসরকারি চ্যানেলের শুটিংয়ের জন্য স্টুডিও রুমও থাকবে এ ভবনে। ছাদে থাকবে জিমনেসিয়াম, সুইমিংপুল ও রেস্তোরাঁ।
এফডিসি কর্তৃপক্ষ আরও জানায়, ২০১২ সালের ৩০ অক্টোবর বিষয়টি নিয়ে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু এবং তৎকালীন এমডির মধ্যে ২ ঘণ্টাব্যাপী আলোচনা হয়। ওই  বৈঠকেই এফসিডির আধুনিকায়ন নিয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। সে সময়েই বিএফডিসি কমপ্লেক্স নির্মাণের নকশা তৈরি হয়। কথা ছিল ওই বছরের ১৬ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রী এফডিসিতে এসে প্রকল্পের কাজ উদ্বোধন করবেন কিন্তু পরবর্তী সময়ে নানা জটিলতায় সেটি আর সম্ভব হয়নি।
তবে প্রকল্প সম্পর্কে বর্তমান অবস্থা জানাতে প্রকল্প প্রণয়নকারী বিএফডিসির তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মোহাম্মদ আইয়ুব আলী বলেন, ‘মাস দুয়েক আগে আমরা তথ্য মন্ত্রণালয়ে প্রকল্পটি পাঠিয়েছি। সামনের সপ্তাহে পরিকল্পনা কমিশনের প্রি-একনেকে উঠবে এটি। সব ঠিক থাকলে চলতি বছরের এপ্রিল মাস থেকে বিএফডিসি কমপ্লেক্স নির্মাণের প্রকল্পের কাজ শুরুর আশা করা যায়।’
আর বিএফডিসি কর্মকর্তারা মনে করছেন, এই কমপ্লেক্স নির্মিত হলে পাশাপাশি এফডিসির আধুনিকায়ন ও সম্প্রসারণের কাজ সমাপ্ত হলে চিত্র নির্মাতাদের আর দেশের বাইরে যেতে হবে না। দেশের মধ্যেই এক জায়গায়তেই নির্মাণসহ অনেক কাজ একত্রে করা সম্ভব হবে।

Disconnect