ফনেটিক ইউনিজয়
জেনে নিন হৃদ্‌রোগের লক্ষণ

হৃদ্রোগ যেমন হার্ট অ্যাটাক, হার্টফেল, কিংবা স্ট্রোকের মতো ভয়ংকর রোগ থেকে মুক্তি পেতে হলে এর কারণগুলো জেনে সে অনুযায়ী চিকিৎসা নিলেই অঘটনের হাত থেকে বেঁচে যাবেন। চলুন জেনে নেওয়া যাক হৃদ্‌রোগের কারণগুলো-
-হঠাৎ বুকের ব্যথা বেড়ে গেলে বা হঠাৎ বুক শক্ত হয়ে গিয়ে টনটন ব্যথা অনুভূত হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। কারণ বেশির ভাগ হৃদ্রোগ বুকে ব্যথা দিয়েই শুরু হয়ে থাকে।
-বুক ছাড়াও তলপেটের ওপরে, কাঁধে, ঘাড়ে, দাঁতের গোড়ায় ব্যথা অনুভূত হলেও চিকিৎসকের পরামর্শ নিন কারণ এ জন্যও হৃদ্‌রোগ হতে পারে।
-কোনো কারণ ছাড়াই যদি আপনার শ্বাস-প্রশ্বাস ধীর কিংবা অল্পতেই ক্লান্ত হয়ে যান, তখন মনে রাখবেন কোনো একটা সমস্যা হচ্ছে আপনার শরীরে। এ ধরনের লক্ষণ দেখা দিলে নিজের শরীরের অবস্থা কী তা একজন ভালো চিকিৎসকের কাছে চেকআপ করিয়ে নিন।
-দিনে বা রাতে অপ্রয়োজনে ঘাম বের হলে বুঝবেন আপনার হৃৎপিণ্ড অনেক দুর্বল হয়ে গেছে। এটি শরীরে পর্যাপ্ত রক্ত সরবরাহ করতে পারছে না। এ কারণে অযথা এভাবে ঘামছেন। এমন হলে অবশ্যই শরীরের তাপ কমানোর চেষ্টা করুন। হাতপাখা কিংবা বাতাস প্রবাহিত হচ্ছে এমন কোনো ছায়াযুক্ত স্থানে বসে বিশ্রাম করুন।
-অনেক সময় হৃদ্‌রোগের আগে পেটে সমস্যা দেখা দেয়, এ সময় পেটে গ্যাসসহ পেটব্যথা একই সঙ্গে বমি হওয়া কিংবা বমি ভাব দেখা দেয়। এ ধরনের সমস্যা দেখা দিলেও দ্রুত চিকিৎসকের সঙ্গে আলোচনা করুন।

Disconnect