অস্ট্রেলিয়ায় ওমিক্রনে প্রথম মৃত্যু

অস্ট্রেলিয়ার সবচেয়ে জনবহুল রাজ্য নিউ সাউথ ওয়েলসে করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনে প্রথম রোগীর মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া রাজ্যটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় ছয় হাজারের বেশি করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে।

আজ সোমবার (২৭ ডিসেম্বর) রাজ্য কর্তৃপক্ষ এসব তথ্য জানিয়েছে।

ওমিক্রনে আক্রান্ত ওই ব্যক্তি সিডনির বাসিন্দা। তার বয়স আশির কোটায়। তিনি আগে থেকেই অসুস্থ ছিলেন। তিনি করোনা টিকার ডোজ সম্পন্ন করেছিলেন। 

এর আগে ইংল্যান্ড ও যুক্তরাষ্ট্রে ওমিক্রনে মৃত্যু হয়েছে কয়েকজনের। এদিকে বিশ্বের শতাধিক দেশে ছড়িয়ে পড়েছে ওমিক্রন।

নিউ সাউথ ওয়েলসে সোমবার ৬ হাজার ৩২৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে, যা আগের দিনের রেকর্ড ৭০ জনের চেয়ে কম। তাদের মধ্যে ৫৫ জন ইনসেনটিভ কেয়ারেসহ মোট ৫২৪ জন হাসপাতালে রয়েছেন। 

সংক্রমণ প্রতিরোধে রাজ্য সরকার আজ নতুন করে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। এতে রয়েছে বার ও রেস্তোরাঁয় দুজনের মধ্যে প্রতি দুই বর্গমিটারের (২২ বর্গ ফুট) দুরত্ব থাকা এবং আতিথেয়তা স্থানগুলোতে কিউআর কোডসহ ‘চেক-ইন’ বাধ্যতামূলক।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী ব্রাড হ্যাজার্ড বলেন, রাজ্য সরকার কর্মী স্বল্পতার কারণে করোনার সংস্পর্শে আসার পরে স্বাস্থ্যকর্মীদের আইসোলেশনের প্রয়োজনীয়তা তুলে নেয়ার কথা বিবেচনা করছে।

অস্ট্রেলিয়ার বেশিরভাগ এলাকায় অভ্যন্তরীণ তথা এক রাজ্য থেকে আরেক রাজ্যে যাওয়ার জন্য সীমান্ত খুলে দেওয়া হচ্ছিল। কোয়ারেন্টিনের শর্ত ছাড়াই বিদেশ থেকে অস্ট্রেলিয়ানরা ফিরতে শুরু করেছিলেন। এর মধ্যে দেশজুড়ে ওমিক্রনের বিস্তারে অস্ট্রেলিয়ায় মহামারি এই ভাইরাসে শনাক্ত আগের সব রেকর্ড ভেঙেছে। -রয়টার্স

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //