এ বছরের শেষ দিকে সিরামের টিকা আসতে পারে: তথ্যমন্ত্রী

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ

কাঁচামালের অপর্যাপ্ততার কারণে ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউটে অক্সেফোর্ড-অ‌্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা উৎপাদন জোরদার না হওয়ায় চুক্তি অনুযায়ী বাংলাদেশ সময়মতো সব টিকা পায়নি। প্রতিবন্ধকতা কেটে গেলে এ বছরের শেষের দিকে ফের টিকা পাওয়া যাবে বলে জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

শুক্রবার (১০ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর মিন্টো রোডে সরকারি বাসভবনে ভারত সফর বিষয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ‌্য জানান তথ্যমন্ত্রী।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, ‘ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন, তারা যেমন আশা করেছিল, সে অনুযায়ী টিকা উৎপাদন হয়নি। এ বছরের শেষের দিকে অর্থাৎ অক্টোবরের দিকে টিকা উৎপাদন আরও জোরদার হবে।’

‘টিকার র ম‌্যাটেরিয়াল (কাঁচামাল) বিদেশে থেকে আসে। সেগুলো না আসার কারণে তারা টিকা উদপাদনে যেতে পারছে না। আশা করি, এই বছরের শেষের দিকে এই প্রতিবন্ধকতা কেটে যাবে। তখন আমাদের সাথে চুক্তি অনুযায়ী সেই টিকা সরবরাহ করা সম্ভব হবে।’

মন্ত্রী জানান, প্রেসক্লাব অব ইন্ডিয়াতে বঙ্গবন্ধু মিডিয়া সেন্টার উদ্বোধন করা হয়েছে। সেখানে গুরুত্বপূর্ণ স্থানে বঙ্গবন্ধুর ফুল সাইজ পোর্ট্রেট স্থাপন করা হয়েছে। সেই অনুষ্ঠানে প্রেসক্লাব অব ইন্ডিয়ার সব নেতা উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশের হাইকমিশনার ড. ইমরানও উপস্থিত ছিলেন।

সফরকালে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী, তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং পররাষ্ট্র সচিবের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে বলে জানিয়েছেন তথ‌্যমন্ত্রী।

ড. হাছান মাহমুদ ভারত সফরে ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব ওয়ার্ল্ড অ্যাফেয়ার্স আয়োজিত একটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে যোগ দেন। ‘বাংলাদেশ ওয়ার কমেন্ট্রি’ নামে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের ওপর বইটি লিখেছেন ইউ এল বড়ুয়া। এর পাশাপাশি ভারতের রাষ্ট্রীয় টিভি ‘দূরদর্শনে’ একটি সাক্ষাৎকার দেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অঞ্চলে বিনিয়োগের বিষয়ে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সচিবের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। ভ্যাকসিন নিয়েও আলোচনা হয়েছে। ইনফরমেশন ও ব্রডকাস্ট মন্ত্রীর সঙ্গে সার্বিক বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। আলোচনায় বঙ্গবন্ধুর বায়োপিক দ্রুত সম্পাদনা করে মুক্তি দেওয়ার বিষয়ে কথা হয়েছে। আমাদের মুক্তিযুদ্ধের ওপর একটি ছবি নির্মাণের চুক্তি আছে, সেটি যাতে দ্রুত শুরু করতে পারি সে বিষয়েও আলোচনা হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘৭ ডিসেম্বর হচ্ছে ভারত-বাংলাদেশ মৈত্রীর ৫০ বছর। সেটি কীভাবে উদযাপন করতে পারি, সে বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে।’ এই সফরের মধ্যে দিয়ে দুই দেশের সম্পর্ক আরও জোরদার হবে বলে মনে করেন তথ‌্যমন্ত্রী।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //