ICT Division

ছাত্রীর শরীরে গরম চা ঢেলে দিলেন ইডেন ছাত্রলীগ নেত্রী

পাঠকক্ষে বসা নিয়ে বিবাদের জেরে এক ছাত্রীর পায়ে গরম চা ঢালাসহ হাত মচকে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে ইডেন কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আয়েশা ইসলাম মীমের বিরুদ্ধে।

গতকাল সোমবার (১৯ আগস্ট) সন্ধ্যার দিকে শহীদ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ছাত্রী নিবাসের ৩১৩ নম্বর রুমে এই ঘটনা ঘটে।

অন্যদিকে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী ২০১৬-১৭ সেশনের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী। এ ঘটনায় হল সুপার বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন তিনি।

লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় কলেজের শহীদ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ছাত্রীনিবাসের ৩১৩ নম্বর কক্ষে এ ঘটনা ঘটে। এর আগে সকাল ৯টার দিকে হলের পাঠকক্ষে প্রবেশের জায়গা দখল করে মীমের অনুসারী এক শিক্ষার্থী টেবিল বসিয়ে পড়ছিলেন। এতে চলাচলে বিঘ্ন ঘটায় ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী তাকে সরে বসতে বলেন। এ সময় উভয়ের মধ্যে বাগবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে মীমের অনুসারী ভুক্তভোগীকে বলেন, আমি দেখে নেব, কীভাবে তুমি এই কলেজে পড়ো।

সন্ধ্যার দিকে আয়েশা ইসলাম মীম কলেজ ছাত্রলীগের ১০-১২ জন কর্মী নিয়ে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীর কক্ষে প্রবেশ করে গালাগাল করেন। এক পর্যায়ে মগে থাকা গরম চা তার পায়ে ঢেলে দেন এবং হাত মচকে দেন। পরে কক্ষের সবাইকে বের হয়ে যেতে বলেন মীম। এ সময় তিনি বলেন, তোর এমন অবস্থা করব যে তুই আত্মহত্যা করতে বাধ্য হবি। তবে ভুক্তভোগীর রুমমেটরা বের হতে অস্বীকৃতি জানালে আরও কিছুক্ষণ মানসিক নির্যাতন করে কক্ষ থেকে দলবলসহ বের হয়ে যান মীম।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে অভিযুক্ত আয়শা ইসলাম মীম গণমাধ্যমকে বলেন, এ রকম কিছুই ঘটেনি। কেউ আমার নামে মিথ্যা অভিযোগ দিচ্ছে। আমি ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলাম না।

হল সুপার নাজমুন নাহার অভিযোগপত্র পাওয়ার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এ বিষয়ে আমাদের মিটিং আছে। সেখানে এ বিষয়ে আলোচনা হবে।

ইডেন কলেজের অধ্যক্ষ সুপ্রিয়া ভট্টাচার্য বলেন, আমরা ঘটনা শুনেছি। হোস্টেল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি দেখছেন।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //