গোল্ডেন মনিরের ২০০ প্লটের তদন্তে রাজউক

অনিয়ম-দুর্নীতির মাধ্যমে গোল্ডেন মনিরের ২০০টি প্লটের মালিক হয়েছেন, তদন্তে এমন সত্যতা মিললে তা বাতিল করা হবে বলে জানিয়েছেন রাজউক চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সাঈদ নূর আলম। 

গোল্ডেন মনিরের বাসা থেকে ২০০ প্লটের নথি জব্দ এবং বাড্ডার বাসা থেকে কর্মচারীদের নিয়ন্ত্রণের বিষয়ে রাজউক চেয়ারম্যান বলেন, ‘এগুলো আমরা তদন্ত করবো। তদন্তে যারা যারা শনাক্ত হবে তাদের সবার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে এবং আদালতে যে মামলা আছে তা চলবেই।’

‘আমরা ধারণা এটা একদিনের প্রক্রিয়া নয়, এটা দীর্ঘদিনের প্রক্রিয়া। আমরা এতো দিনে উদঘাটন করতে সক্ষম হয়েছি। গতবছর প্রথম উদঘাটন হয় এবং তখন থেকে আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করছি। সর্বশেষ বিষয়টি উদঘাটিত না হওয়া পর্যন্ত এ ব্যবস্থা চলমান থাকবে।’

রবিবার (২২ নভেম্বর) স্থানীয় সরকার বিভাগে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন রাজউক চেয়ারম্যান।

এদিকে, রাজউক ভবনে অফিস নিয়ে দলিল জালিয়াতি করতো গোল্ডেন মনির- এর প্রমাণ পেয়েই তাকে গ্রেফতারের কথা জানিয়েছিলো র‍্যাব।

শুক্রবার রাতে রাজধানীর মেরুল বাড্ডায় গাড়ি ব্যবসায়ী গোল্ডেন মনিরের বাসায় অভিযানে বিপুল নগদ টাকা, স্বর্ণ, বৈদেশিক মুদ্রা, বিদেশি মদ ও পিস্তল জব্দ করে র‍্যাব। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে নামে-বেনামে দুইশ'রও বেশি প্লট ও প্রায় ১ হাজার ৫০ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদের তথ্য মিলেছে।

র‍্যাব জানিয়েছে, বিমানবন্দর ও রাজউকে তার নিজস্ব একটি সিন্ডিকেট স্বর্ণ চোরাচালান ও প্লট দখল করত। রাজউক ভবনে অফিস নিয়ে দলিল জালিয়াতির অভিযোগের প্রেক্ষিতেই তাকে গ্রেপ্তার করার কথা জানিয়েছেন র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক। তিনি জানান, মনির রাজনৈতিক প্রভাব খাটিয়ে প্লট দখল করতো।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে রাজউক চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সাঈদ নূর আলম বলেন, এগুলো আমরা তদন্ত করব। তদন্তে যারা যারা শনাক্ত হবে, তাদের সকলের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে এবং আদালতে যে মামলা আছে তা চলবেই।

মনিরের ২০০ প্লটের মালিক হওয়ার পেছনে রাজউকের কারো সহযোগিতা ছিল কি না- এ প্রশ্নে রাজউক চেয়ারম্যান বলেন, আমার ধারণা এটা এক দিনের প্রক্রিয়া নয়, এটা দীর্ঘ দিনের প্রক্রিয়া। আমরা এত দিনে উদ্ঘাটন করতে সক্ষম হয়েছি।

ম‌নিরের প্লটগুলো বাতিল করা হবে কি না- এই প্রশ্নে চেয়ারম্যান বলেন, এই প্রক্রিয়ায় যদি কোনো প্রকার ইয়ে (অনিয়ম-দুর্নীতি) থাকে, তাহলে আমরা অবশ্যই বাতিল করব।

অনিয়ম রোধে রাজউকে শুদ্ধি অভিযান পরিচালনা করা হবে জানিয়ে সাঈদ নূর আলম বলেন, নতুন করে আরও শুদ্ধি অভিযান পরিচালনা করব। সেই পরিকল্পনা আমাদের আছে। ভবিষ্যতে কোনো প্রকার অনিয়ম থাকবে না।


মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

© 2020 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh