চালকের আসনে পরিচ্ছন্নতাকর্মী, গাড়িচাপায় পিষ্ট নাঈমের আইনজীবী হওয়ার স্বপ্ন

নাঈম হাসান। ছবি: সংগৃহীত

নাঈম হাসান। ছবি: সংগৃহীত

নটরডেম কলেজের মানবিক শাখার দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ছিল নাঈম হাসান (১৭)। স্বপ্ন ছিল পড়ালেখা শেষ করে আইনজীবী হয়ে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর। সে স্বপ্ন শেষ হয়ে গেল সড়কেই। সিটি কর্পোরেশনের পরিছন্নতা কর্মীর গাড়িচাপায় মারা যায় সে।

নাঈম হাসানকে চাপা দেওয়া ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) সেই ময়লার গাড়ির চালক রাসেল (২৬) আসলে করপোরেশনের নিয়োগপ্রাপ্ত কোনও চালক নন। তিনি একসময় ডিএসসিসি’র ক্লিনার হিসেবে দৈনিক মজুরির ভিত্তিতে চাকরি করতেন। এখন তার সেই ক্লিনারের চাকরিটিও নেই।

বুধবার (২৪ নভেম্বর) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কলেজ থেকে বাসায় ফেরার সময় পল্টন মোড়ের হল মার্কেটের গোল চত্বরে ডিএসসিসির গাড়িটি নাঈমকে চাপা দেয়। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে দুপুর সোয়া ১২টার দিকে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

এদিন সন্ধ্যায় ঢামেক হাসপাতালে নাঈমের মরদেহের জন্য অপেক্ষা করছিলেন তার বড় ভাই বিইউপি শিক্ষার্থী মুনতাসির মামুন। তিনি বলেন, ২০২২ সালে নটরডেম থেকে আমার ভাইয়ের এইচএসসি পরীক্ষা দেওয়ার কথা ছিল। আজ সকালে সে কলেজে যায়। কলেজ শেষ করে বাসায় ফেরার সময় সিটি করপোরেশনের ময়লার গাড়িতে চাপা পড়ে মারা যায় সে। 

তিনি বলেন, কলেজ শেষ করে ল-তে ভর্তি হতে চেয়েছিল সে। আইনজীবী হয়ে অসহায় মানুষের সেবা করার ইচ্ছে ছিল তার। কিন্তু সেই স্বপ্ন গাড়ির চাকায় পিষ্ট হয়ে গেছে। 

কথাগুলো বলতে গিয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েন ভাই মামুন। এ সময় তার বাবাকেও কান্নাকাটি করতে দেখা যায়। ছেলে হারিয়ে পাগলপ্রায় বাবাকে কোনোভাবেই শান্ত করা যাচ্ছিল না।

নাঈমের ভাই মামুন আরও জানান, ময়নাতদন্ত শেষ হয়ে গেছে। মরদেহ কামরাঙ্গীচরের ঝাউলাহাটিতে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। সেখানে জানাজা শেষে লক্ষ্মীপুর জেলার রামগঞ্জ থানার মিয়াজী বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হবে।

ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে নাঈমকে নিয়ে আসা হকার জানান, সিএনজিচালিত অটোরিকশায় করে ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে আসেন। আসার সময় দেখেছেন, পুলিশ ঘাতক গাড়িটি ও চালককে আটক করেছে। 

পল্টন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সালাউদ্দিন মিয়া বলেন, আমরা ঘাতক গাড়ি ও চালক মো. রাসেল খানকে আটক করেছি। নিহতের মামা মামলা দায়ের করবেন। ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে। স্বজনদের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হয়েছে।

নাঈম হাসানের নিহতের খবর নটরডেম কলজে ছড়িয়ে পড়লে বিকেলে শিক্ষার্থীরা মতিঝিল শাপলা চত্বর এলাকার সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করতে থাকে। সহপাঠী হত্যার বিচার দাবি করে তারা।  

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //