হাসপাতালে স্ত্রীর মরদেহ রেখে পালালেন স্বামী

রাজধানীর দক্ষিণখানে ইফাত শরীফ মিশু (৩২) নামের এক নারীকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। পরে তার স্বামী লাশ হাসপাতালে রেখে পালিয়ে যায় বলে জানিয়েছে পুলিশ। 

আজ সোমবার (১৩ জুন) বিকেলে ওই নারীকে অচেতন অবস্থায় ঢাকা মেডিক‌্যাল কলেজে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। 

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ি ইনচার্জ ইন্সপেক্টর বাচ্চু মিয়া বলেন, নিহতের লাশ মর্গে রাখা হয়েছে। এ বিষয়ে খিলগাঁও থানা পুলিশকে অবহিত করা হয়েছে। 

নিহতের স্বজনদের সঙ্গে আলাপে জানা গেছে, আজ সোমবার (১৩ জুন) দুপুরের পর নুর আলম ফোন করে জানায়; মিশু গলায় ফাঁস দিয়েছে। তাকে উদ্ধার করে কাকরাইল একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। আমরা সেখানে যাওয়ার আগে মিশুকে রেখে পালিয়ে যায় নূর। পরে তাকে ঢাকা মেডিক‌্যালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। সে গলায় ফাঁস দিয়েছে, এটা আমাদের বিশ্বাস হয় না। তাকে হত্যা করে লাশ ঝুলিয়ে রাখা হতে পারে।

নিহতের খালু ফিরোজ আলম গণমাধ্যমের কাছে অভিযোগ করে বলেন, মিশুর সঙ্গে ছয় বছর আগে নূরে আলমের বিয়ে হয়। তাদের এক ছেলে ও এক মেয়ে আছে। বিয়ের পর থেকেই বিভিন্ন মেয়ের প্রতি আসক্ত হয়ে পড়ে নূর। আরো একটি বিয়েও করেন। অবশ্য ওই মেয়েকে ডিভোর্স দেন। এরপর আবার ওই মেয়ের কাছে গিয়ে থাকতে শুরু করেন নূর। এ নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহ শুরু হয়। মূলত এ কারণেই মিশুকে হত্যা করা হতে পারে।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //