নতুন দুই সিনেমায় পূর্ণিমা

ছবি: পূর্ণিমার ফেসবুক পেজ থেকে নেয়া

ছবি: পূর্ণিমার ফেসবুক পেজ থেকে নেয়া

ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় নায়িকা পূর্ণিমা। অভিনয় ক্যারিয়ারে অনেক সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন। সিনেমার পাশাপাশি উপস্থাপনা করেও প্রশংসা কুড়িয়েছেন। বিশেষ বিশেষ সময়ে নাটকেও দেখা যায় তাকে। 

দীর্ঘদিন পর নতুন সিনেমায় অভিনয় করছেন চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা। দুটি সিনেমারই শুটিং চলছে। একটি সিনেমার নাম ‘জ্যাম’, আরেকটি সিনেমার নাম ‘গাঙচিল’। পরিচালক নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল পরিচালনা করছেন দুটি সিনেমাই। বেশিরভাগ কাজই শেষ হয়েছে। বাকি শুটিং নভেম্বর মাস থেকে শুরু হবে।

জ্যাম ছবি সম্পর্কে পূর্ণিমা বলেন, ‘আপাতত ‘জ্যাম’র চরিত্রটি নিয়ে কিছু বলতে চাই না। একটু চমক থাকুক। এটুকু বলবো, দর্শকরা নতুন কিছু পাবেন। আর এই সিনেমাতে অভিনয় করার পেছনে একটি কারণ আছে। সেটি হলো সিনেমাটি তৈরি হচ্ছে প্রয়াত মান্না ভাইয়ের প্রযোজনা সংস্থা থেকে। মান্না ভাইয়ের প্রতি শ্রদ্ধা জানাই। এর আগে মান্না ভাইয়ের বিপরীতে আমিও অভিনয় করেছি। তাঁর স্ত্রী শেলী ভাবী এই সিনেমাটি প্রযোজনা করছেন। সুন্দরভাবে কাজটি শেষ হোক এই প্রত্যাশা করছি। তারপর মুক্তির পর প্রেক্ষাগৃহে গিয়ে দর্শকরা গল্পটুকু জেনে নেবেন।’


তিনি বলেন, ‘সিনেমার গল্পটি প্রয়াত সাংবাদিক আহমেদ জামান চৌধুরীর লেখা, সংলাপ তৈরি করছেন পান্থ শাহরিয়ার। অনেগুলো গুণি মানুষ সম্পৃক্ত আছে এই সিনেমাটির সাথে। এমন একটি সিনেমার সঙ্গে থাকতে পেরে ভালোই লাগছে।’

‘গাঙচিল’ সিনেমার বিষয়ে পূর্ণিমা বলেন, ‘গাঙচিল সিনেমায় আমি অভিনয় করছি একজন এনজিওকর্মীর চরিত্রে। যে কী না একসময় উপকূলীয় এলাকায় চলে যায় সাহায্য করার জন্য। সেখানে একটি ঝড় হয়। ক্ষতিগ্রস্ত মানুষদের সাহায্য করতে যায়। তারপর সেখানে পরিচয় ঘটে একজন সাংবাদিকের সঙ্গে। সাংবাদিক চরিত্রটি করছেন ফেরদৌস।’ 


গাঙচিল সিনেমার শুটিং করতে গিয়ে দুর্ঘটনার শিকার হয়েছিলেন পূর্ণিমা। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘মোটরবাইকের কিছু দৃশ্য ছিল। আমি ও ফেরদৌস মোটরবাইকে করে এক জায়গায় যাব। ওই দৃশ্যগুলো করার সময়ই দুর্ঘটনার শিকার হই। এরপর তো শুটিং বাদ দিয়ে ঢাকায় চলে আসতে হয়েছিলো। অবশ্য বেশ পরে শুটিং করেছি।’

মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার

© 2019 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh