লালমনিরহাটে নিখোঁজ দুজনের মরদেহ উদ্ধার

লালমনিরহাটে নিখোঁজের ৩দিন পর বেলাল হোসেন (৩০) নামে এক যুবক ও নিখোঁজের একদিন পর গালিব হোসেন (৭) নামে এক শিশুর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। 

সোমবার (২৭ জুলাই) দুপুরে জেলার আদিতমারী উপজেলার সারপুকুর ইউনিয়নের যুগীপাড়া জোড়াদেবী এলাকা থেকে ওই যুবকের অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মৃত বেলাল ছিলেন মাইক্রো চালক ও সদ্য বিবাহিত। সে সদর উপজেলার হাড়িভাঙ্গা এলাকার আবুল কালামের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, গত শনিবার (২৫ জুলাই) রাত ৯ টার দিকে আদিতমারী উপজেলার সাপ্টিবাড়ি বাজারে একজনের সাথে দেখা করতে গিয়ে আর বাড়ি ফিরেনি সদ্য বিবাহিত মাইক্রো চালক বেলাল হোসেন। অনেক খোঁজাখুঁজি করে সন্ধান না পেয়ে বেলালের মা জরিনা বেগম বাদী হয়ে রবিবার (২৬ জুলাই) সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন।

সোমবার দুপুরে আদিতমারী উপজেলার সারপুকুর ইউনিয়নের যুগীপাড়া জোড়াদেবী এলাকায় লালমনিরহাট বুড়িমারী মহাসড়কের পাশে পাটক্ষেতে কাজ করতে গিয়ে অর্ধগলিত একটি মরদেহ দেখতে পায় স্থানীয়রা। খবর পেয়ে আদিতমারী থানা পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। মৃত বেলালের পরিবারের লোকজন ঘটনাস্থলে এসে মরদেহ শনাক্ত করেন। পরিবার ও স্থানীয়দের ধারণা দুর্বৃত্তরা বেলালকে হত্যা করে মহাসড়কের পাশে পাটক্ষেতে ফেলে দেয়।

আদিতমারী থানা ওসি সাইফুল ইসলাম বলেন, মরদেহ মর্গে পাঠানো হয়েছে। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এদিকে জেলার আদিতমারী উপজেলায় নিখোঁজ হওয়ার একদিন পর গালিব হোসেন (৭) নামে এক শিশুর মরদেহ উদ্ধার করেছে স্থানীয়রা। সোমবার (২৭ জুলাই) সকালে উপজেলার মহিষখোঁচা ইউনিয়নের চৌধুরী বাজার ওয়াব্দা ব্রিজের নিচ থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। গালিব ওই এলাকার ইদ্রীস আলীর ছেলে।

মরদেহ উদ্ধারের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন মহিষখোঁচা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোসাদ্দেক হোসেন চৌধুরী।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh