মহেশপুরে দেবরদের হাতে ভাবী খুন, আটক ৩

ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলায় মৃত ভাইয়ের দেনা পরিশোধকে কেন্দ্র করে দেবরদের হাতে ভাবী নাছিমা খাতুন (৫৫) নিহত হয়েছেন। সে কমলাপুর গ্রামের আব্দুল লতিফের স্ত্রী। এ ঘটনায় পুলিশ তিনজনকে আটক করেছে।

প্রতিবেশী রকিবুদ্দিন জানান, কমলাপুর গ্রামের মৃত রবিউল হোসেনের ৬ ছেলের মধ্যে আজাদ অবিবাহিত অবস্থায় প্রায় ৮২ লক্ষ টাকা দেনা রেখে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যায়। পরে তার অবশিষ্ট ৫ ভাইয়ের মধ্যে ঢাকায় অবস্থানরত জাকারিয়া মৃত ভাইয়ের দেনা পরিশোধ করার জন্য ৫ ভাইকে বলে, এনিয়ে কয়েকবার সালিশ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। মৃত আজাদের নামে প্রায় ৪২ লক্ষ টাকার সম্পদ আছে।

জাকারিয়া, ভাইদের সাথে কথা বলে জানায়, মৃত আজাদের সম্পদ তার নামে লিখে দিলে ভাইয়ের সব দেনা পরিশোধ করে দেব। এ নিয়ে শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) সন্ধ্যায় জাকারিয়া ঢাকা থেকে গিয়ে ভাইদের নিয়ে শনিবার সকালে বাড়িতে একটি সালিশ বৈঠকে বসে। একপর্যায়ে সংঘর্ষ হয়, বড় ভাই লতিফের স্ত্রী নাছিমা খাতুনকে (৫৫) ধাক্কা দিলে তিনি দেওয়ালের সাথে ধাক্কা খেয়ে মারাত্মক আহত হয়। স্থানীরা তাকে দ্রুত উদ্ধার করে যশোর চৌগাছা হাসপাতালে ভর্তি করলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এব্যাপারে মহেশপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, পারিবারিক কলহের জেরে সংঘর্ষে একজন মহিলার মৃত্যু হয়েছে। নিহতের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ ময়না তদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ তিনজনকে আটক করেছে। হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় মহেশপুর থানায় মামলা দায়ের করার প্রস্তুতি চলছে।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

© 2020 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh