রিমান্ডের আদেশ শুনেই অজ্ঞান হেফাজত নেতা

জেলা হেফাজতে ইসলামের সহ-দফতর সম্পাদক আব্দুল হক।

জেলা হেফাজতে ইসলামের সহ-দফতর সম্পাদক আব্দুল হক।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার তাণ্ডবের একটি মামলায় রিমান্ড মঞ্জুরের আদেশ শুনে আদালতেই অচেতন হয়ে পড়েন জেলা হেফাজতে ইসলামের সহ-দফতর সম্পাদক আব্দুল হক।

বুধবার (১৬ জুন) বিকেলে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে এ ঘটনা ঘটে। পরে তাকে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা দেয়ার পর কারাগারে পাঠানো হয়।

আব্দুল হক জেলা শহরের জামিয়া ইসলামিয়া ইউনুছিয়া মাদরাসার জ্যেষ্ঠ শিক্ষক।

পুলিশ বলছে, রিমান্ড মঞ্জুর হয়েছে শুনে অচেতন হওয়ার ‘অভিনয়’ করেন আব্দুল হক।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, তাণ্ডবের একটি মামলায় বুধবার হেফাজত নেতা আব্দুল হককে জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তার আবেদনের প্রেক্ষিতে শুনানি শেষে আব্দুল হককে তিনদিনের রিমান্ডে নেয়ার আদেশ দেন বিচারক আল আমিন। পরবর্তীতে রিমান্ড মঞ্জুরের খবরে অচেতন হয়ে পড়েন আব্দুল হক।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক নাজমুল হক জানান, ওই ব্যক্তির রক্তচাপ ও ডায়াবেটিসসহ সব কিছুই স্বাভাবিক রয়েছে। তবে মানসিক চাপে আছেন বলে পরিলক্ষিত হয়েছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এমরানুল হক জানান, হেফাজত নেতা আব্দুল হককে তাণ্ডবের ১৩টি মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তদন্তকারী কর্মকর্তা ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। শুনানির পর এজলাস থেকে বের হয়ে বাইরে টেবিলের ওপর আসরের নামাজ আদায় করেন তিনি। নামাজের পর হঠাৎ করে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে জেলা সদর হাসপাতালে নেয়া হয়। পরবর্তীতে শারীরিকভাবে সুস্থ হলে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh