জামালপুরে স্ত্রীর যৌতুক মামলায় স্বামীর ৭ বছরের কারাদণ্ড

জামালপুরে স্ত্রীর দায়েরকৃত নারী নির্যাতনের মামলায় মো. মজিবুর রহমান নামে একজনের ৭ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ২৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড হয়েছে।

বুধবার (৩ নভেম্বর) দুপুরে জামালপুর জেলা ও দায়রা জজ আদালতের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিজ্ঞ বিচারক মুহাম্মদ রফিকুল ইসলাম এ রায় ঘোষণা করেন। 

দণ্ডপ্রাপ্ত মুজিবুর রহমান জামালপুর সদর উপজেলার চর গজারিয়া গ্রামের মৃত চান মিয়ার ছেলে।

আদালত ও মামলা সূত্র জানায়, মুহাম্মদ মুজিবুর রহমানের সাথে প্রায় ১২ বছর আগে এক লাখ টাকা যৌতুকের বিনিময়ে জামালপুর সদর উপজেলার চর গজারিয়া গ্রামের মৃত বায়তুল্লাহ বেপারীর মেয়ে মোছা. জেসমিনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই স্বামী মুজিবুর রহমান আরো একলাখ টাকা যৌতুকের দাবিতে স্ত্রী জেসমিনকে চাপ প্রয়োগ করে আসছিলো। এর জের ধরে ২০১৭ সালে ২ জুলাই বিকালে মুজিবুর তার স্ত্রীকে মারপিট করে। এই ঘটনায় জেসমিন বাদী হয়ে তার স্বামী এবং স্বামীর তিন ভাই ও মায়ের বিরুদ্ধে জামালপুর সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেন। 

বিজ্ঞ আদালত দীর্ঘ শুনানি ও সাক্ষীদের সাক্ষ্যপ্রমাণের ভিত্তিতে বুধবার দুপুরে মামলার ১ নম্বর আসামি মুজিবুর রহমানকে ৭ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ২৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড, অনাদায়ে তিনমাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন। মামলার অপর চার আসামিকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়।

বাদীপক্ষে মামলা পরিচালনা করেন অ্যাডভোকেট আকরাম হোসেন ও আসামি পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট এনায়েত হোসেন হিটলার।

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আকরাম হোসেন রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, বিজ্ঞ বিচারক ১১ জন সাক্ষীর মধ্যে ৮ জনের সাক্ষ্যপ্রমাণের ভিত্তিতে একজনের সাজা ও চারজনকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //