ICT Division

মানিকগঞ্জে বিএনপির আড়াই হাজার নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

মানিকগঞ্জে পুলিশের সাথে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনায় আড়াই হাজার জনের বিরুদ্ধে সদর থানায় মামলা হয়েছে। এদের মধ্যে ৩৩ জনের নাম উল্লেখ করে এজাহার করা হয়েছে। বাকিরা অজ্ঞাত পরিচয়ের।

গতকাল বৃহস্পতিবার (১ সেপ্টেম্বর) রাতে সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আব্দুল লিটন বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার উল্লেখযোগ্য আসামিরা হলেন- জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট আজাদ হোসেন খান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সত্যেন কান্ত পন্ডিত ভজন, জেলা যুবদলের আহ্বায়ক কাজী মোস্তাক হোসেন দিপু, সদস্য সচিব তুহিনুর রহমান তুহিন, সদর থানা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফজলুল হক, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি রিয়াজুল ইসলাম সজিব, সাধারণ সম্পাদক নুসরাতুল ইসলাম জ্যাকি, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট আওলাদ হোসেন ও জেলা কৃষকদলের সদস্য সচিব মাসুদুর রহমান মাসুদ। 

এজাহারে উল্লেখ করা হয়, আসামিরা জেলা শহরের সেওতা এলাকার শহীদ তজু সড়কে যান চলাচল বন্ধ রেখে সরকার ও রাষ্ট্রবিরোধী স্লোগান দিতে থাকে। রাস্তা বন্ধ না করে যান চলাচল স্বাভাবিক রাখার অনুরোধ করলেও তারা রাস্তার ওপর অবস্থান নেন। এক পর্যায়ে তারা পুলিশের সাথে ধাক্কাধাক্কিতে লিপ্ত হয়। পুলিশের পক্ষ থেকে বাঁশি বাজিয়ে তাদের ওপর মৃদু লাঠিচার্জ করা হয়। এরপর আসামিরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করলে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রউফ সরকার ও কনস্টেবল শাহীনসহ ৭ পুলিশ সদস্য আহত হন। তারা ২টি মোটরসাইকেল ভাঙচুরসহ ব্যাপক ক্ষতি করেন।

এজাহারে উল্লেখিত অন্য আসামিরা হলেন- সেলিম মোহাম্মদ, রুবেল মাহমুদ, রাজিব হাসান খান, সিরাজুল ইসলাম সজিব, গোলাম কিবরিয়া সাঈদ, অ্যাডভোবেট আরিফুল ইসলাম লিটন, আসাদুজ্জামান শিপু, জিএস জিন্নাহ, রিয়াজ মাহমুদ হারেজ, আব্দুল খালেক শুভ, রফিক উদ্দিন ভূঁইয়া হাবু, অ্যাডভোকেট উজ্জল, সিহাব সুমন,  জিয়াউদ্দিন আহমেদ কবির, রাকিব হাসান তপু, অলিদ, গোলাম রফি অপু, মো. আবদুল কাদের, লিটন কসাই, আসিফ ইকবাল রনি, শরিফুল ইসলাম চান, পালু, মাহফুজ, আব্দুর রহমান পন্ডিত।

মানিকগঞ্জ জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এস এ জিন্নাহ কবির বলেন, বিএনপি একটি গণতান্ত্রিক দল। বারবার ক্ষমতায় থেকে দেশ ও  জনগণের কল্যাণে কাজ করেছে। ১ সেপ্টেম্বর দলের ৪৪ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে একটি শান্তিপূর্ণ একটি র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি শহরের খালপাড় এলাকায় পৌঁছালে পুলিশ বিনা উসকানিতে বিএনপি নেতাকর্মীদের ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। এতে শতাধিক নেতাকর্মী আহত হন। পাশাপাশি আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের ক্যাডাররা দেশীয় অস্ত্র-শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে প্রকাশ্যে মহড়া দেয়। তাদের বিরুদ্ধে মামলা না দিয়ে নিরস্ত্র শান্তিপ্রিয় নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়েছে পুলিশ। এটা কোনো গণতান্ত্রিক দেশের চিত্র হতে পারে না। আমি এর তীব্র নিন্দা ও অবিলম্বে মামলাটি প্রত্যাহারের দাবি জানাই।

মানিকগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রউফ সরকার বলেন, বৃহস্পতিবার বিএনপির নেতাকর্মীরা পুলিশের ওপর লাঠিসোটা ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন এ বিষয়ে ৩৩জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা আড়াই হাজার জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। আসামিদের মধ্যে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফজলুল হক, ছাত্রদল নেতা সেলিম মোহাম্মদ ও রুবেল মাহমুদকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেপ্তারে জোর পুলিশি চেষ্টা চলছে।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //