মিস ইউনিভার্সে অংশ নেয়া হলো না মিথিলার

‘মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশ’এর এবারের আসরে বিজয়ী তানজিয়া জামান মিথিলা। অডিশন পর্ব থেকে তাকে নিয়ে শুরু হয় সমালোচনা। অভিযোগ উঠেছিল অডিশন ছাড়াও চূড়ান্ত পর্বে নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। অবশেষে তার মাথায় উঠল প্রতিযোগিতার মুকুট। 

বাংলাদেশ থেকে ‘মিস ইউনিভার্স ২০২০’ প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ার কথা ছিল মিথিলার। কিন্তু বিজয়ী হওয়ার পর থেকে বিভিন্ন বিতর্ক আবারো শুরু হয় তাকে ঘিরে। এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য বয়স লুকানো ও পুরুষ হয়রানির বিষয়টি। 

বিজয়ী হওয়ার পর ‘মিস ইউনিভার্স’-এর ওয়েবসাইটে উঠেছিল মিথিলার নাম। যেখানে তাকে ভোট দেয়ার সুযোগ ছিল। কিন্তু হঠাৎ তাদের ওয়েবসাইট থেকে সরিয়ে নেয়া হলো মিথিলার নাম।

 

জানা যায়, করোনার ভ্যাকসিন নিতে না পারায় মূল প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারছেন না মিথিলা। এছাড়াও মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশ কর্তৃপক্ষ তাদের ফেসবুকে বিষয়টি পোস্ট করেছে। যেখানে লেখা, ‘লকডাউন ও ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা থাকার কারণে আমরা প্রস্তুতি শেষ করতে পারিনি। তাই এবারের আসরে আমরা অংশ নিতে পারছি না। বিষয়টি মূল আয়োজকদের এই সপ্তাহে জানানো হয়েছে।’

অন্যদিকে, বিউটি পেজেন্টদের নিয়ে কাজ করা অনলাইন ম্যাগাজিন ‘সাশ ফ্যাক্টর’ জানায়িছে ভিন্ন কথা। তারা বলছে তানজিয়া জামান মিথিলাকে নিয়ে বিভিন্ন বিতর্ক শুরু হয়েছে। এছাড়া দেশের বিউটি পেজেন্টরা মিথিলাক মূল প্রতিযোগিতার জন্য সাপোর্ট করছেন না। যে কারণে মিস ইউনিভার্স ওয়েবসাইট থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে তার নাম।


প্রতিযোগিতার নিয়ম অনুযায়ী অংশগ্রহণকারীর বয়স ২৮ বছরের কম হতে হবে। অভিযোগ রয়েছে মিথিলার বয়সের সীমা আগেই পেরিয়েছেন।

মিথিলা এই প্রসঙ্গে বলেন, ‘আমি বয়স নিয়ে কোনও লুকোচুরি করিনি। আমার জন্ম ১৯৯৪ সালের জানুয়ারিতে। সেটি আমার জন্মনিবন্ধন, ভোটার আইডি, পাসপোর্ট সবকিছুতে উল্লেখ রয়েছে। কিন্তু ১৯৯২ হলেও কিন্তু আমি কোয়ালিফাইড। আর মিস ইউনিভার্সের কাছে আমার সব তথ্য রয়েছে।’

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh