সুচিত্রা সেনের নবম মৃত্যুবার্ষিকী

বাংলা চলচ্চিত্রের কিংবদন্তি মহানায়িকা সুচিত্রা সেন। ১৯৫২ সালে 'শেষ কোথায়' ছবির মাধ্যমে চলচ্চিত্রে যাত্রা শুরু করেন তিনি। যদিও সেই ছবি মুক্তি পায়নি। এরপর উত্তম কুমারের বিপরীতে 'সাড়ে চুয়াত্তর' ছবিতে তিনি অভিনয় করেন। ছবিটি বক্স-অফিসে অসম্ভব সাফল্য লাভ করে এবং সেই থেকে সুচিত্রার আর ফিরে তাকাতে হয়নি।

উত্তম কুমারের সাথে জুটি বেধে বাংলা চলচ্চিত্রে অসংখ্য সিনেমা উপহার দিয়েছেন এ নায়িকা। আজও সর্বসেরা এবং এইরকম জনপ্রিয় জুটির কাছাকাছিও কেউ পৌঁছতে পারে নি। প্রায় ২০ বছরের উপর এই জুটি বাংলা সিনেমাপ্রেমীদের আচ্ছন্ন করে রেখেছিল।

আজ মঙ্গলবার (১৭ জানুয়ারি), মহানায়িকা সুচিত্রা সেনের নবম মৃত্যুবার্ষিকী। ২০১৪ সালের এইদিনে কলকাতার বেলভিউ হাসপাতালে শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। 

১৯৩১ সালের ৬ এপ্রিল পাবনায় সুচিত্রা সেন জন্মগ্রহণ করেছিলেন। তাঁর আসল নাম রমা সেন। তাঁর পিতা করুণাময় দাশগুপ্ত ছিলেন বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও মা ইন্দিরা দেবী ছিলেন গৃহবধূ। তিনি ছিলেন পরিবারের পঞ্চম সন্তান ও তৃতীয় কন্যা। পাবনা শহরেই তিনি পড়াশোনা করেছিলেন। কবি রজনীকান্ত সেনের নাতনী ছিলেন তিনি। ১৯৪৭ সালে শিল্পপতি আদিনাথ সেনের পুত্র দিবানাথ সেনের সাথে সুচিত্রা সেনের বিবাহ হয়। তাঁদের একমাত্র কন্যা মুনমুন সেনও একজন অভিনেত্রী।

১৯৬৩ সালে সাত পাকে বাঁধা চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য মস্কো চলচ্চিত্র উৎসবে "সিলভার প্রাইজ ফর বেস্ট অ্যাকট্রেস" জয় করেন সুচিত্রা সেন। প্রথম ভারতীয় অভিনেত্রী হিসেবে তিনি এই আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে পুরস্কৃত হয়েছিলেন। ১৯৭২ সালে ভারত সরকার তাঁকে পদ্মশ্রী পুরস্কার প্রদান করে।

শোনা যায়, ২০০৫ সালে তাঁকে দাদাসাহেব ফালকে পুরস্কার দেওয়ার প্রস্তাব রাখা হয়েছিল; কিন্তু সুচিত্রা সেন জনসমক্ষে আসতে চান না বলে এই পুরস্কার গ্রহণ করেন নি। ২০১২ সালে তাঁকে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের সর্বোচ্চ সম্মাননা বঙ্গবিভূষণ প্রদান করা হয়।

পাবনার গন্ডি পেরিয়ে অভিনয় গুণে সুচিত্রা সেন হয়ে উঠেছিলেন দুই বাংলার চলচ্চিত্রপ্রেমীদের মহানায়িকা। যার অভিনয়-সৌন্দর্য আজও দাগ কেটে আছে সবার মনে।

সুচিত্রা সেনের নবম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষ্যে আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে দশটায় হেমসাগর লেনের পৈত্রিক বাড়িতে সুচিত্রা সেন স্মৃতি সংরক্ষণ পরিষদের উদ্যোগে ‘স্মরণ সভা’র আয়োজন করা হয়েছে। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে রাজশাহীস্থ ভারতীয় সহকারী হাই কমিশনার মনোজ কুমার।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2023 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //