অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা নেবেন বরিস জনসন

 প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন

প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনাভাইরাসের টিকা নেবেন যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। এই টিকার নিরাপত্তা নিয়ে ইউরোপে শঙ্কার মধ্যে গতকাল বুধবার (১৭ মার্চ) তিনি এই ঘোষণা দিয়েছেন। 

নিরাপত্তা শঙ্কায় ইউরোপের বেশ কিছু দেশ সাময়িকভাবে অক্সফোর্ডের করোনার টিকার ব্যবহার স্থগিত করেছে। তবে এই টিকার নিরাপত্তা নিয়ে ওঠা প্রশ্ন পার্লামেন্টে নাকচ করছেন যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী।

টিকা নেয়া প্রসঙ্গে বরিস বলেন, এটি অবশ্যই অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা হবে এবং এটাই আমি নেবো।

যুক্তরাজ্যে পরবর্তী ধাপে টিকা দেয়া হবে, তাদের মধ্যে ৫৬ বছর বয়সী বরিস জনসন রয়েছেন। আগামী জুলাই মাস নাগাদ যুক্তরাজ্যের কর্তৃপক্ষ দেশটির প্রাপ্তবয়স্ক সব মানুষকে টিকা দিতে চায় দেশটি।

যুক্তরাজ্যে গত বছরের ডিসেম্বরে গণটিকাদান কর্মসূচি শুরু হয়। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ২৫ মিলিয়নের বেশি মানুষ করোনার টিকার প্রথম ডোজ পেয়েছেন। তার মধ্যে ১১ মিলিয়ন মানুষ পেয়েছেন অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা।

যুক্তরাজ্যের অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি ও ব্রিটিশ-সুইডিশ ওষুধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান অ্যাস্ট্রাজেনেকা পিএলসি যৌথভাবে এই টিকা উদ্ভাবন করেছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এই টিকার প্রয়োগ চলছে।

সম্প্রতি ইউরোপের কয়েকটি দেশে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। টিকা নিলে রক্ত জমাট বাঁধছে- এমন অভিযোগের পর সতর্কতার অংশ হিসেবে বেশকিছু দেশ এই টিকা কর্মসূচি স্থগিত করে। 

তবে অ্যাস্ট্রাজেনেকার পাশাপাশি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ও ইউরোপিয়ান মেডিসিন এজেন্সিগুলো জোর দিয়ে বলেছে- এই টিকাটি নিরাপদ।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh