এয়ার কন্ডিশনার ছাড়াও ঘর ঠান্ডা রাখা সম্ভব

দুঃসহ গরম পড়েছে ও সারাদিন এসি চালিয়ে রেখেও সমস্যার সমাধান করা সম্ভব হচ্ছে না। সারাক্ষণ এসি চালিয়ে রাখলে অন্য সমস্যাও হতে পারে।

তাই খুব সহজ কয়েকটি টিপস হাজির করা হচ্ছে- প্রত্যেকটিই পরীক্ষিত ও প্রমাণিত।

তবে এ ক্ষেত্রেও কয়েকটি কথা বলার আছে। যাদের ঘরের দেয়ালের রং হালকা বা সিলিংয়ের সাদা রং লাগানো আছে, তাদের ঘর ঠান্ডা রাখাও অপেক্ষাকৃত সহজ। তেমনই যদি আপনার ঘরে পশ্চিমমুখো জানলা বা বারান্দা থাকে, তা হলে বেশি তাপ ঢুকবে।

বেলা বাড়লে জানালা বন্ধ করে পর্দা টেনে দিন

সকালের মিঠে রোদের মেয়াদ বেশিক্ষণ নয়। তাই ঘড়ির কাঁটা ১১টা ছাড়ালে জানালা বন্ধ করে পরদা টেনে দিন। ব্লাইন্ডস থাকলে তা বন্ধ করে দিন। এতে ঘরে তাপ ঢুকবে কম। পাখা চলিয়ে রাখলেও আরাম পাবেন। আবার বিকেলের দিকে জানালা খুলে দিন। মুখোমুখি জানালা থাকলে ঘরে হাওয়া বাতাস চলাচল করবে ভালো।

সুতি বা লিনেনের পর্দা

সুতির বা লিনেনের মতো প্রাকৃতিক ফ্যাব্রিকের পর্দা ও বেড শিট ব্যবহার করুন। তা যেন হালকা রঙের হয়। হালকা রঙের চাদর আর পর্দা তাপ প্রতিফলিত করবে, তার ফলে ঘর ঠান্ডা রাখতে সুবিধে হবে। চাদর আর পর্দা বেশি ময়লা হওয়ার আগেই কেচে ফেলুন।

আবছা অন্ধকার ঘর বেশি ঠান্ডা হয়

ঘরে আলো কম হলে ঠান্ডা ভাব থাকে বেশি। যারা কম্পিউটারে কাজ করছেন, তাদের কম আলোতে অসুবিধে হলে টেবিল ল্যাম্প জ্বেলে নিন। টিউবলাইটের চেয়ে সিএফএল ল্যাম্পের আলো বেশি ঠান্ডা। সম্ভব হলে তা বদলে নিতে পারেন।

ঘরে গাছ রাখুন

ঘরের মধ্যে গাছ রাখলে তা দেখতেও সুন্দর লাগে, তাপও শুষে নেয়। মানিপ্লান্ট, অ্যালোভেরা, স্নেক প্লান্ট, অ্যারিকা পাম ঘরে দিব্যি সুন্দর লাগে দেখতে। তবে কারও পরাগরেণুতে অ্যালার্জি থাকলে গাছ রাখার আগে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে নিন একবার।

রান্না করার সময় এগজস্ট ফ্যান চালু রাখা

রান্না করার সময় ঘরের মধ্যেটা গরম হয়ে যায়। তাই অবশ্যই এগজস্ট ফ্যান চালিয়ে রাখুন। সম্ভব হলে তাপ চড়ার আগেই রান্না সেরে ফেলুন। -ফেমিনাডটইন্ডিয়া


মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh