অনলাইন ব্যবসা শুরুর আগে করণীয়

অনলাইনে ব্যবসা শুরু করা খুব কঠিন কিছু নয়, আবার সহজও নয়। যে কোনো ব্যবসা শুরুর আগে কিছু করণীয় থাকে। ব্যবসায়িক পরিকল্পনা সাজানোর জরুরি বিষয়গুলো প্রায় উপেক্ষা করতে দেখা যায় নতুন উদ্যোক্তাদের মধ্যে। যার ফলে ব্যবসা শুরুর পর কাঙ্ক্ষিত ফল দেখা যায় না, কিংবা টিকে থাকাই হয়ে ওঠে মুশকিল।

জেনে নেই অনলাইন ব্যবসা শুরুর আগে করণীয়-

কোন পণ্যের ব্যবসা করবেন

প্রথমেই ঠিক করতে হবে কোন পণ্য কিংবা সার্ভিস দিয়ে ব্যবসা করবেন। অনলাইনে অনেক উদ্যোক্তা বিভিন্ন রকম পণ্যের কিংবা সার্ভিসের ব্যবসা করছেন, আপনি কী বিক্রি করবেন তা ঠিক করতে হবে নিজেকে। কারো দেখাদেখি কিংবা অনুকরণ না করে নিজে যে পণ্যের উপর বিশ্বাস করেন, যে পণ্য নিয়ে ভালো ধারণা আছে তা নিয়েই শুরু করতে হবে। 

বাজার বিশ্লেষণ 

কী নিয়ে বিজনেস করবেন ঠিক করলেন, কিন্তু সে পণ্যের চাহিদা কেমন, কারা কিনবে, কতবার কিনবে- এ ধরনের ব্যাপারগুলো নিয়ে স্টাডি করুন। দেখা গেল এমন পণ্য নিয়ে কাজ করছেন যেটার তেমন চাহিদা নেই, কিংবা আপনার পণ্যের টার্গেট কাস্টমারদের কাছে বিক্রি না করে যার চাহিদা নেই তার কাছে বিক্রি করতে চাচ্ছেন। সে ক্ষেত্রে ব্যবসার গ্রোথ আশানুরূপ হবে না, বরং ব্যর্থ হওয়ার সমূহ আশঙ্কা তৈরি হবে। তাই মার্কেট বুঝুন ভালো করে। 

ব্যবসায়িক পরিকল্পনা

সবচেয়ে বেশি উদ্যোক্তারা যে ভুলটা করে থাকেন তা হলো একটি সঠিক ব্যবসা পরিকল্পনা না করা। কেবল মুখে মুখে কিংবা ধারণা করে নয়, একটি  পুরো ব্যবসায়িক পরিকল্পনাটি লিখুন। এতে কোথায় কী ধরনের গ্যাপ আছে নিজেই বুঝে যাবেন। আসলে একটি ব্যবসায়িক পরিকল্পনা আপনার আইডিয়াকে এমনভাবে সাজিয়ে তুলবে যাতে বুঝতে পারেন আপনার স্ট্র্যাটেজি  কেমন হওয়া উচিত, আপনার একটা নির্দিষ্ট লক্ষ্যে পৌঁছতে পুরো ওয়ার্ক প্রসেস কেমন হতে হবে। অনেক ভালো বিজনেস আইডিয়া ফেইল করতে পারে শুধু স্ট্র্যাটেজি না থাকার কারণে।

ওয়েবসাইট ও সোশ্যাল মিডিয়া

অফলাইন বিজনেসে আমরা যেমনটা দোকানে পণ্য বিক্রি করি ঠিক তেমনি অনলাইনে পণ্য আমরা ওয়েবসাইটে পণ্য বিক্রি করি। ওয়েবসাইটই আপনার ডিজিটাল দোকান। একটি ওয়েবসাইট থাকলে গ্রাহক আপনাকে যেমন স্মার্ট ভাববেন তেমনি আপনার উপর বিশ্বাস বাড়বে। অনলাইন ব্যবসার ক্ষেত্রে বিশ্বাস খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। কিন্তু কথা হলো ব্যবসা শুরুর সময়ই কি ৪০-৫০ হাজার টাকা খরচ করে ওয়েবসাইট বানাবেন? এটা মোটেও ভালো বুদ্ধি হবে না। বর্তমানে এমন অনেক প্ল্যাটফর্ম আছে যেগুলো দিয়ে নিজেই ই-কমার্স ওয়েবসাইট সেট-আপ করে নেওয়া যায়। যেমন- বণিক অ্যাপ ব্যবহার করে ফ্রিতে মাত্র এক মিনিটে মোবাইল ফোন দিয়েই নিজের ওয়েবসাইট বানিয়ে নিন। অর্ডার ম্যানেজমেন্ট থেকে শুরু করে পেমেন্ট, ডেলিভারি ও ই-কমার্সের যাবতীয় ফিচার মোবাইলেই পেয়ে যাবেন।

তাছাড়া নিজের ব্যবসার জন্য ফেসবুক, ইনস্টাগ্রামের মতো সোশ্যাল মিডিয়াগুলোতে পেজ খুলে ফেলুন। ওয়েবসাইটটি পেজে যোগ করে দিন। প্রতিনিয়ত পেজে কন্টেন্ট দিয়ে সক্রিয় থাকুন, গ্রাহকের বার্তা ও কমেন্টের রেসপন্স করুন। সঙ্গে নিজের ব্যবসার একটা কমিউনিটি গড়ে তুলুন ফেসবুক গ্রুপের মাধ্যমে। 

প্রয়োজনীয় ডকুমেন্ট

ব্যবসা পরিচালনা করতে কোনো ধরনের অনুমতি, বৈধ কাগজপত্র থাকা আবশ্যকীয় হলে করে ফেলুন। বিজনেস আইডি, ট্রেড লাইসেন্স করে ফেলুন। চেষ্টা করুন ব্যবসা শুরুর পর যেন জটিলতা এড়িয়ে চলা যায় এবং সম্পূর্ণ মনোযোগ ব্যবসায় দেওয়া যায়।

সর্বোপরি, ধৈর্য ধরে ব্যবসা এগিয়ে নিন। রাতারাতি সাফল্য আসবে না, টার্গেট ধরে ধরে এগোতে হবে। সবসময় নতুন ট্রেন্ড কিংবা নতুন নিয়মের সঙ্গে আপডেটেড থাকার চেষ্টা করুন। গ্রাহকের কথা শুনুন, তাদের মতামতের গুরুত্ব দিন; কারণ ব্যবসায় গ্রাহকই সব।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //