ভাবি রওশনের বাসায় দেবর জি এম কাদের

জাতীয় পার্টির প্রধান পৃষ্ঠপোষক ও সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদের সাথে বৈঠক করেছেন দলটির চেয়ারম্যান জি এম কাদের। আজ রবিবার (২৫ ডিসেম্বর) সকালে জাপা মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নুকে নিয়ে তিনি গুলশানে রওশন এরশাদের বাসায় যান।

জাতীয় পার্টির সূত্রে জানা যায়, বৈঠকে রওশন এরশাদের পরামর্শ নিয়ে দল পরিচালনার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন জিএম কাদের। এ সময় মামলা প্রত্যাহার করারও অনুরোধ জানান তিনি।

অন্যদিকে বৈঠকে আগামী ১ জানুয়ারি জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী এক সঙ্গে পালনের প্রস্তাব দিয়েছেন রওশন এরশাদ।

এর আগে,গত ১৩ ডিসেম্বর গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে একসঙ্গে বৈঠক করেন রওশন এরশাদ ও জিএম কাদের। সে সময় রওশন এরশাদের ছেলে রাহগির আল মাহি সাদ এরশাদও উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুর পর থেকে দলের নেতৃত্ব নিয়ে রওশন ও জি এম কাদেরের মধ্যে টানপাড়েন দেখা যায়। তবে সম্প্রতি বিরোধ চরমে উঠে যখন রওশন দলের জাতীয় সম্মেলনের ডাক দেন।

রওশন এরশাদ সংসদে বিরোধীদলীয় নেতার পদের পাশাপাশি জাতীয় পার্টির প্রধান পৃষ্ঠপোষক। চেয়ারম্যান ছাড়া অন্য কেউ এই সম্মেলন ডাকতে পারেন না, এমন কথা জানিয়ে জিএম কাদের ও তার অনুসারীরা জানান কড়া প্রতিক্রিয়া।

সেই সঙ্গে দলের সংসদীয় দলের সভায় রওশনকে বাদ দিয়ে জি এম কাদেরকে বিরোধীদলীয় নেতা করতে স্পিকারকে চিঠি দেয়। এই দাবি মেনে না নিলে সংসদে না যাওয়ার হুমকিও আসে। পাশাপাশি রওশনপন্থিদেরকে দল থেকে একের পর এক বহিষ্কার করা হতে থাকে। 

অন্যদিকে জি এম কাদেরের নেতৃত্বের বিষয়টি গড়ায় আদালতে। এর মধ্যে চিকিৎসার জন্য কয়েক মাস পর বিদেশে থেকে দেশে ফেরেন রওশন। এরপর অবশ্য দুই পক্ষে সমঝোতার ইঙ্গিত মেলে। রওশনপন্থি নেতা মশিউর রহমান রাঙ্গা দুই নেতাকে এক টেবিলে বসানোর আগ্রহ প্রকাশ করেন।

তবে দেবর ভাবির বৈঠকেও বরফ পুরোপুরি গলেনি। এর মধ্যে জাতীয় সংসদ থেকে পদত্যাগ করে বিএনপির পক্ষ থেকে জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্যদের প্রতিও একই আহ্বানও জানানো হয়েছে, যদিও জাপা এমপিরা তা নাকচ করেছেন।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2023 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //