ঝালকাঠিতে আ.লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা, আহত ৩

ঝালকাঠি প্রতিনিধি

প্রকাশ: ১৮ মে ২০২১, ১২:২৮ পিএম

হালিমের স্ত্রী সুখি বেগমসহ আরো তিনজন আহত হয়েছে। ছবি : ঝালকাঠি প্রতিনিধি

হালিমের স্ত্রী সুখি বেগমসহ আরো তিনজন আহত হয়েছে। ছবি : ঝালকাঠি প্রতিনিধি

ঝালকাঠির রাজাপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে হালিম খলিফা (৪৮) নামে আওয়ামী লীগের এক নেতাকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় হালিমের স্ত্রী সুখি বেগমসহ আরো তিনজন আহত হয়েছে। 

গতকাল সোমবার (১৭ মে) রাত ৮টার দিকে উপজেলার চর হাইলাকাঠি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ রাজাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে ঘটনায় জড়িত থানার অভিযোগে মন্টু খলিফা (৪৫) ও সেলিম খান (৬০) নামে দুইজনকে আটক করেছে। 

হালিম মঠবাড়ি ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। আহত অন্যরা হলেন- সুখির দুই ভাই লিটন তালুকদার (৪৮) ও সাইফুল তালুকদার (২৬)। 

নিহতের শ্যালক সাইফুল তালুকদার অভিযোগ করেন, দীর্ঘদিন ধরে জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছিলো একই বাড়ির প্রতিপক্ষদের সাথে। এ নিয়ে কয়েক দফায় শালিশ হলেও বিরোধের সুরাহা হয়নি। কয়েকদিন ধরে এ নিয়ে উত্তেজনা বিরাজ করছিলো। এসব ঘটনার জেরে গতকাল রাতে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে প্রতিপক্ষ মন্টু খলিফা, সেনাসদস্য তুহিন খান, সেলিম খান, শাহিন, সোহাগ, সজীব, শামিম ও শাওনসহ ১৫/২০ জন্য পূর্ব পরিকল্পিতভাবে অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হালিম খলিফা ও তার স্ত্রী সুখি বেগমকে জখম করে। খবর শুনে বোন ও ভগ্নিপতিকে রক্ষায় এগিয়ে গেলে লিটন ও সাইফুলকেও কুপিয়ে জখম করে প্রতিপক্ষরা। 

পরে স্থানীয়দের সহযোগীতায় আহতদের রাজাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এলে রাত সাড়ে ৮টার দিকে হালিম খলিফাকে মৃত ঘোষণা করে এবং অপর আহত লিটন, সাইফুল ও সুখি এবং আহত অভিযুক্ত মন্টুকে রাজাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। 

রাজাপুর থানার ওসি শহিদুল ইসলাম জানান, কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় মন্টু ও সেলিম নামে দুজনকে আটক করা হয়েছে। অপর অভিযুক্তদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এ ঘটনায় প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

প্রধান সম্পাদক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ | প্রকাশক: নাহিদা আকতার জাহেদী

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Design & Developed By Root Soft Bangladesh