চীনে বাক্সবন্দী করে রাখা হচ্ছে করোনা রোগীদের

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশ: ১৩ জানুয়ারি ২০২২, ০১:১২ পিএম | আপডেট: ১৪ জানুয়ারি ২০২২, ১২:১৪ এএম

চীনে এই ধাতব বাক্সে রাখা হচ্ছে করোনা রোগীদের। ছবি : টুইটার

চীনে এই ধাতব বাক্সে রাখা হচ্ছে করোনা রোগীদের। ছবি : টুইটার

কয়েক সপ্তাহ পরেই শীতকালীন অলিম্পিকের আসর বসবে চীনের রাজধানী বেইজিংয়ে। তার মধ্যে বেশ কিছু শহরে করোনাভাইরাস সংক্রমণের বাড়বাড়ন্ত মাথাব্যথার কারণ হয়ে উঠেছে দেশটির সরকারের। 

সংক্রমণ নাগালে রাখতে নিভৃতবাস, বিচ্ছিন্নবাস, লকডাউন সব পন্থাই নিয়েছে তারা। এত কিছু করেও সংক্রমণ আয়ত্তে না আসায় নতুন পথ বেছে নিল দেশটি। 

চীনের একটি ভিডিও সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এতে দেখা যায়, সারি সারি বাক্স নির্মাণ করা হয়েছে ধাতব পাত দিয়ে। এগুলোয় সন্দেহভাজন কোভিড-১৯ রোগীদের রাখা হয়।

কোভিড সংক্রমণ রুখতে তাদের নীতিতে বেশ কিছু পরিবর্তন এনেছে চীন সরকার। এই ধাতব বাক্সে নিভৃতবাস সেই পরিবর্তনে নতুন সংযোজন। 

ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, কোভিড সংক্রমিত ব্যক্তিদের বা তাদের সংস্পর্শে আসা সবাইকে ধাতব বাক্সের ঘরে ঢুকিয়ে দেওয়া হচ্ছে। সেখানে রয়েছে একটি খাট, পানির বোতল ও একটি শৌচাগার। 

সংবাদ সংস্থা সূত্রে খবর, চীনের মধ্যাঞ্চলের শাংচি প্রদেশের জিআন শহরে খোলা হয়েছে এই নিভৃতবাস ক্যাম্প। সেখানে শিশু থেকে শুরু করে বয়স্ক, এমনকি গর্ভবতী নারীদেরও অন্তত দু’সপ্তাহের জন্য রাখা হচ্ছে।

আর এই কোয়ারেন্টিন সেন্টারে যেতে হয় মূলত মধ্য রাতে। চীনের বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দারা বলেছেন, কর্তব্যরত ব্যক্তিরা তাদের মধ্য রাতে বাড়ি ত্যাগ করতে এবং কোয়ারেন্টিন সেন্টারে যেতে বলেন।

চীনে করোনার সংক্রমণ ছড়ানোর পর থেকে ট্রেস-অ্যান্ড-ট্র্যাক অ্যাপ চালু করা হয়েছে। এই অ্যাপ ব্যবহারও বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। মূলত এই অ্যাপ দিয়েই রোগীর সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের শনাক্ত করা হয়। -আনন্দবাজার পত্রিকা ও এনডিটিভি

প্রধান সম্পাদক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ | প্রকাশক: নাহিদা আকতার জাহেদী

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Design & Developed By Root Soft Bangladesh