আলুবোখারায় রয়েছে কোষ্ঠকাঠিন্যের দাওয়াই

অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৭ জুন ২০২২, ০৯:২৩ এএম | আপডেট: ১৭ জুন ২০২২, ১০:১৯ এএম

আলুবোখারা। ফাইল ছবি

আলুবোখারা। ফাইল ছবি

কোষ্ঠকাঠিন্য, গ্যাস কিংবা হজমের বিভিন্ন সমস্যা দিনের পর দিন বাড়তে থাকলে হতে পারে বিপদ। অনেকেই এই সমস্যার চটজলদি সমাধান চান। ঔষধ না খেয়েই এই সমস্যার চটজলদি সমাধান করা সম্ভব। এই মুশকিলের আসান আলুবোখারা ফলের মধ্যেই রয়েছে।

মাঝেমধ্যেই বিরিয়ানি খাওয়ার সময় পাতে পড়ে টক-মিষ্টি ফল আলুবোখারা। চাটনিতে এই ফল পড়লে তার স্বাদ বেড়ে যায় কয়েক গুণ। তবে দেশে আলাদা করে ফল হিসেবে আলুবোখরা খাওয়ার চল নেই বললেই চলে।

পুষ্টিবিদদের মতে, খাদ্যতালিকায় আলুবোখরা রাখতে পারলেই পেটের নানা সমস্যা থেকে রেহাই মিলতে পারে।

আলুবোখারায় ভরপুর মাত্রায় ফাইবার থাকে। প্রতিদিন সাত থেকে আটটা আলুবোখারা খেতে পারলেই শরীরে দৈনিক ফাইবারের যা চাহিদা তার ২০ শতাংশ পূরণ করা সম্ভব। খাদ্যতালিকায় পর্যাপ্ত মাত্রায় ফাইবার থাকলে হজমশক্তির উন্নতি হয়। হজম ভালো হলেই পেট পরিষ্কার হয়। রাতে ঘুমানোর আগে পানিতে শুকনো আলুবোখারা ভিজিয়ে রাখুন। পরের দিন সকালে পানিসুদ্ধ সেই আলুবোখারাগুলো খেয়ে ফেলতে হবে।

মাঝেমাঝে খেলে তেমন ফলাফল পাবেন না। নিয়মিত খেতে পারলে তবেই কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যাসহ পেটের যাবতীয় সমস্যায় আরাম পেতে পারেন।

যেকোনো সালাদে ব্যবহার করা যায় আলুবোখারা। খিদে পেলে স্ন্যাকস হিসেবেও খেতে পারেন এই ফল। তাছাড়া স্মুদিতেও এটি ব্যবহার করা যেতে পারে, খেতে মন্দ লাগবে না।

প্রধান সম্পাদক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ | প্রকাশক: নাহিদা আকতার জাহেদী

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Design & Developed By Root Soft Bangladesh