যন্ত্রণা-দুর্ভোগ সয়ে ঈদযাত্রা

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশ: ০৯ জুলাই ২০২২, ০২:০৮ এএম

বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে যান চলাচল একেবারেই থমকে গেছে। ছবি: টাঙ্গাইল প্রতিনিধি

বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে যান চলাচল একেবারেই থমকে গেছে। ছবি: টাঙ্গাইল প্রতিনিধি

পরিবারের সাথে ঈদ উদযাপনে রাজধানী ঢাকা ছেড়েছে লাখো মানুষ। স্রোতের মতো ঘরমুখী মানুষের যাত্রার প্রভাব পড়ছে সড়ক-মহাসড়কসহ সবখানে। এতে করে দুর্ভোগে পড়েছেন সাধারণ মানুষ।

আজ শনিবার (৯ জুলাই) মধ্যরাত পর্যন্ত পাওয়া খবরে ঢাকা-টাঙ্গাইল, ঢাকা-ময়মনসিংহ, ঢাকা-চট্টগ্রাম ও ঢাকা-সিলেট মহাসড়কগুলোয় মাঝারি থেকে তীব্র যানজট রয়েছে।

গাজীপুরের ঢাকা-টাঙ্গাইল ও ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে গতকাল সকাল থেকেই যাত্রী ও যানবাহনের বাড়তি চাপ থাকায় বেশ কয়েকটি পয়েন্টে থেমে থেমে যানজট তৈরি হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার রাতে একটি দুর্ঘটনার কারণে বঙ্গবন্ধু সেতুর টোল আদায় ৪০ মিনিট বন্ধ ছিল। এর প্রভাবে গতকাল ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের প্রায় ৩৫ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়।

গাজীপুরের ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের টঙ্গী থেকে চান্দনা চৌরাস্তা পর্যন্ত ১২ কিলোমিটার সড়কে গতকাল সকালে যানবাহনের ধীরগতি থাকায় টঙ্গী, মিলগেট, বোর্ডবাজার, ভোগড়া ও চান্দনা চৌরাস্তা এলাকায় থেমে থেমে যানজট সৃষ্টি হচ্ছে। মহাসড়কের এ অংশে বিআরটি প্রকল্পের কাজ চলমান থাকায় দুটি লেন বন্ধ রয়েছে। এর ফলেই জট তৈরি হয়েছে।

রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলসহ উত্তরাঞ্চলের অগণিত মানুষ বিভিন্ন যানবাহনে চেপে ছুটে আসছে মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া ও আরিচা ঘাটে। আরিচা-কাজীরহাট নৌরুটে ফেরিস্বল্পতায় যানবাহন পারাপারে কিছুটা বিঘ্ন ঘটছে। গতকাল সকাল থেকে পাটুরিয়া ও আরিচা ঘাটে দক্ষিণ-পশ্চিমসহ উত্তরাঞ্চলগামী যানবাহনসহ ঘরমুখী মানুষের বাড়তি চাপ দেখা গেছে। বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিসি) এ খবর নিশ্চিত করেছে।

বিআইডব্লিউটিসির আরিচা আঞ্চলিক কার্যালয়ের উপমহাব্যবস্থাপক শাহ মোহাম্মদ খালেদ নেয়াজ জানান, পাটুরিয়া ৫ নম্বর ঘাটের মুখে শতাধিক ছোট গাড়ি এবং টার্মিনালমুখী কয়েক শ যাত্রীবাহী পরিবহন পদ্মা পাড়ি দিতে অপেক্ষায় রয়েছে। অপেক্ষমাণ যানবাহনের সারি ক্রমেই দীর্ঘ হচ্ছে।

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লা অংশে গতকাল শুক্রবার সকাল থেকে যানবাহনের চাপ বেড়েছে। এই চাপ কুমিল্লা অংশের দাউদকান্দি টোল প্লাজার দুই থেকে তিন কিলোমিটার এলাকায় বেশি প্রভাব ফেলেছে।

ফলে বাস চলছে ধীরগতিতে। দাউদকান্দি টোল প্লাজায় টোল আদায়ে ধীরগতির কারণে গত বৃহস্পতিবার রাত ১১টা থেকে কুমিল্লা-ঢাকা লেনে জট শুরু হয়।

এই জট ১০ কিলোমিটার দীর্ঘ হয়ে যায়। এ জট আরও দীর্ঘ হতে পারে বলে শঙ্কা রয়েছে।’

দাউদকান্দি হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জহুরুল হক বলেন, কুমিল্লা অংশে কোনো যানজট নেই। গতকাল (বৃহস্পতিবার) রাতে যে চাপ ছিল, তা আমরা ভোরের আগেই কাভার করেছি।

আমি এখনো টোল প্লাজার সামনে বসে আছি। সামান্য চাপ আছে, কিন্তু যানজট নেই। ঈদ মৌসুমে মানুষ ঘরে ফেরে, তাই চাপটা একটু বেশি। আমরা মাঠে কাজ করছি।

ঢাকার থেকে কিশোরগঞ্জ, ভৈরব, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, হবিগঞ্জ, সিলেটসহ পূর্বাঞ্চলে প্রবেশের মহাসড়ক মাত্র একটি। ফলে নরসিংদীর রায়পুরার ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে মাহমুদাবাদ এলাকায় গতকাল তীব্র যানজট দেখা গেছে। বাস চলছে থেমে থেমে।

প্রধান সম্পাদক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ | প্রকাশক: নাহিদা আকতার জাহেদী

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Design & Developed By Root Soft Bangladesh