বিপিএল এবং একজন মাশরাফি

মোয়াজ্জেম হোসেন রাসেল

প্রকাশ: ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৩:০৩ পিএম

মাশরাফি বিন মর্তুজা। ফাইল ছবি

মাশরাফি বিন মর্তুজা। ফাইল ছবি

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) টানা পাঁচ ম্যাচে পরাজয়ের পর যখন অধিনায়ক হিসেবে মাশরাফি বিন মোর্ত্তজা বিরতিতে যান তখনই জয়ের দেখা পায় সিলেট স্ট্রাইকার্স। ফিটনেস ও ফর্মহীনতার পরও শুরু থেকে খেলে যাওয়ায় নানা সমালোচনার মুখে পড়তে হয়। সংসদ সদস্য মাশরাফি কিছুদিন আগে হুইপ নির্বাচিত হওয়ার পর বিরতি নেন বিপিএল থেকে। এবার প্রথম জয়ের পর আপৎকালীন অধিনায়ক মোহাম্মদ মিঠুনও বলেন, ‘মাশরাফি ভাই এখনো আমাদের অধিনায়ক। ওনার অনুপস্থিতিতে আমি দায়িত্বটা পালন করছি।’ 

আসরটির সঙ্গে মাশরাফির অন্যরকম একটা সখ্য রয়েছে। বিশেষ করে শিরোপা জয়ের হিসেবে তাকে সবচেয়ে সফল অধিনায়ক বলা হয়ে থাকে। ঢাকা গ্ল্যাডিয়েটরসের পর রংপুর রাইডার্সকে শিরোপা পাইয়ে দিতে রেখেছেন অসামান্য ভূমিকা। কিন্তু বয়স ৪০ ছুঁইছুঁই নড়াইল এক্সপ্রেস এখন শুধু ক্রিকেটারই নন একজন আইনপ্রণেতাও। ২০১৮ সালে প্রথমবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর থেকেই ক্রিকেট আর আগের মতো খেলতে পারছেন না মাশরাফি। 

যদিও অধিনায়ক হিসেবেই পরের বছর ইংল্যান্ডে বিশ্বকাপ খেলেছিলেন। ২০২০ সালের মার্চে এই সিলেটেই অধিনায়ক হিসেবে সর্বশেষ ম্যাচ খেলেন। নিজের সেরা সময় পেছনে ফেলে আসা ম্যাশের ক্রিকেটের প্রতি ভালোবাসা সীমাহীন। বিপিএলের ফ্র্যাঞ্চাইজি সিলেট স্ট্রাইকার্সের তার প্রতি অন্যরকম এক টান রয়েছে। তবে সেটা ম্যাশের ক্রিকেট মস্তিষ্কের। সে কারণে পুরোপুরি ফিট না থাকার পরও তাকে রাখতে চাইছে। সিলেটের পক্ষ থেকে মাশরাফির পারফরম্যান্স নিয়ে কোনো কথা বলা হয়নি। সাবেক অধিনায়ক হিসেবে মোহাম্মদ আশরাফুলের পর আকরাম খান তার খেলা নিয়ে সমালোচনামুখর হলেও তার পুরো মনোযোগই মাঠের ক্রিকেট নিয়ে। অনেকেই তাই বিপিএলে মাশরাফির ভবিষ্যৎ নিয়ে সন্দিহান হলেও সবশেষ ম্যাচের পর সেটাও পরিষ্কার হয়ে গেছে। জাতীয় দলের সাবেক এ অধিনায়ক জানেন ক্রিকেটকে তার কতটা দেওয়ার বাকি আছে। 

কয়েক মৌসুম ধরে ক্রিকেট বলতে প্রিমিয়ার লিগ ও বিপিএলেই খেলছেন। কিন্তু পুরনো মাশরাফিকে আর আগের মতো করে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। তাতেই চারদিকে শোরগোল পড়ে গেছে, কেন মাশরাফিকে খেলাচ্ছে সিলেট? বয়স ও শরীর আগের মতো ফিট না থাকলেও খেলার প্রতি টান থাকার জন্য খেলে যাচ্ছেন তিনি। পুরনো ইনজুরি নতুন করে মাথাচাড়া দিয়ে ওঠায় সময়টাও মাশরাফির পক্ষে নয়। যারা মাশরাফিকে চেনেন তারা জানেন, কতটা যুদ্ধ করে এ পর্যন্ত এসেছেন তিনি। সাধারণ ইনজুরি নিয়ে যেখানে অনেকের ক্যারিয়ার শেষ হয়ে যায় সেখানে কমপক্ষে সাত থেকে আট বার অপারেশনের টেবিল থেকে আবারও ফিরেছেন বীরদর্পে। আরেকটি অপারেশন করতে হবে, এমনটাও এখন শোনা যাচ্ছে।

বাংলাদেশ ক্রিকেটে এখন তিনি কেউ নন, যা করার বর্তমান খেলোয়াড়রা করবেন বলেও পরিষ্কার করেছেন। তার অধিনায়কত্বে ওয়ানডেতে সমীহ করা দলে পরিণত হয় বাংলাদেশ। দেশের সবচেয়ে সফল ওয়ানডে অধিনায়ক যেমন তিনি, ঠিক তেমনি হিরোদেরও একজন। সব ফরম্যাটের নেতৃত্ব ছেড়ে দিলেও দেননি অবসরের ঘোষণা। জাতীয় দলে তার আর সুযোগ হবে না এটা একপ্রকার নিশ্চিতই। এখনো মাঠে দলকে পরিচালনা করার পাশাপাশি বল করছেন শট রানআপে অনেকটা খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে। বিপিএলে খেললেও ঘুরেফিরেই চলে আসে তার অবসর প্রসঙ্গ। কিন্তু বিপিএলে সবচেয়ে সফল অধিনায়কও এখন নানা সমালোচনার মুখে। তাকে কেন খেলে যেতে হবে সে প্রশ্নও আসছে। 

এদিকে মাশরাফিকে দেওয়া কথা রেখে সিলেটও ফিরেছে জয়ের ধারায়। সে কারণেই মাশরাফি এখনো বিশেষ কিছু। চমক দিয়ে বিপিএলের শেষদিকে যদি মাঠে ফেরেন তাতেও আশ্চর্যের কিছু থাকবে না।

সম্পাদক ও প্রকাশক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Design & Developed By Root Soft Bangladesh