পাবনায় নারী উদ্যোক্তাদের আয়োজনে ফ্যাশন মেলা

পাবনা প্রতিনিধি

প্রকাশ: ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৫:৫৫ পিএম

নারী উদ্যোক্তাদের নিয়ে চলছে খাদ্য ও ফ্যাশন মেলা। ছবি: পাবনা প্রতিনিধি

নারী উদ্যোক্তাদের নিয়ে চলছে খাদ্য ও ফ্যাশন মেলা। ছবি: পাবনা প্রতিনিধি

পাবনায় হাংরি পাবনার আয়োজনে চতুর্থ বারের মতো নারী উদ্যোক্তাদের নিয়ে চলছে খাদ্য ও ফ্যাশন মেলা। জেলা পর্যায়ের ৩৪ জন নতুন ও পুরাতন নারী উদ্যোক্তা এবার মেলাতে অংশ গ্রহণ করেছেন।

জেলা শহরের প্রাণ কেন্দ্র পৌর মিলনায়তন মাঠ প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত মেলাতে ক্রেতা সমাগমে বেড়েছে। মেলাতে হোমমেড খাবার ও দেশি সুতি কাপড়সহ হস্তশিল্পের বাহারি পোশাকের সমাহার নিয়ে মেলার স্টলগুলোতে সাজিয়ে বসেছেন নারী উদ্যোক্তারা। ১০দিনের মেলাতে অর্ধকোটি টাকার খাবারসহ পোশাক বিক্রির সম্ভাবনার কথা জানালেন আয়োজকেরা।


মেলায় আগত একাধিক ক্রেতা তাদের অভিমত ব্যক্ত করে বলেন, নারীরা আজ আর ঘরে বেসে নেই। তারা নিজ তাগিদে বাহিরে আসতে শুরু করেছেন। নারীরা আর অন্যের উপরে নির্ভরশীল নয়। পাবনায় যত নারী উদ্যোক্তা রয়েছে রাজশাহী বিভাগে এত নারী উদ্যোক্তা নেই। এরা এখন ঢাকাকে বিট করতে পারে যেকোনো বিষয়ে। মেয়েরা এখন নিজেদের ছোট ছোট পণ্য নিয়ে উঠে আসছে। তাদের তৈরিকৃত পণ্য এখন সকলের কাছেই বেশ পরিচিত। আর এমন মেলার উদ্যোগ তাদের আরো বেশি সমাদৃত করছে। তাইতো দর্শক ক্রেতা বিক্রেতার মিলন মেলায় পরিণত হয়েছে। খুবই ভালো লাগছে মেলার আয়োজন দেখে।


মেলায় অংশ গ্রহণ করা একাধিক উদ্যোক্তার সাথে কথা বলে জানা যায়, সবসময় পাবনার মেলা বেশ ভালো হয়ে থাকে। নারীরা এখন নিজেদের ক্ষমতায়নের জন্য এগিয়ে আসছে। মেলাতে বেশ ভালো সারা পাওয়া যাচ্ছে ক্রেতাদের। তবে কাপড়ের দাম বেশি সূতার দামও বেশি। এই জন্য স্বল্প সুদে সরকার ঋণের ব্যবস্থা যদি করতো তাহলে উদ্যোক্তাদের জন্য সুবিধা হতো। হাংরি পাবনার মাধ্যমে আজ নারী উদ্যোক্তারা অনেক এগিয়ে গেছে। যুব উন্নয়ন ও মহিলা অধিদপ্তর থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে আজ নিজেরা কিছু করার চেষ্টা করছে। মাসিক ইনকাম বেশ ভালো হচ্ছে তাদের।

মেলার সমন্বয়ক নারী উদ্যোক্তা ইলোরা লেয়া বলেন, করোনাকালীন সময় এক প্রকারে সবাই ঘরে বসে ছিল। আর সেই সময়ে নারীদের একটি প্রচেষ্টায় তারা ঘুরে দাঁড়িয়েছে। বন্ধ হওয়া ব্যবসা তারা ঘরে বসে চালু করে দেখিয়ে দিয়েছে। হাংরি পাবনার মাধ্যমে উদ্যোক্তা তৈরি করে আজকের এই মেলার আয়োজন করা হয়েছে। এখানে সকল নারী পুরুষ নিজের প্রচেষ্টায় কিছু করার চেষ্টা করছেন। সফল উদ্যোক্তা হবার জন্য কাজ করছেন। আর হাংরি পাবনা তাদের সার্বিকভাবে সহযোগী করছে।


মেলার উদ্যোক্তা হাংরি পাবনার এডমিন দেওয়ান মাহাবুব বলেন, শিক্ষিত নারী পুরুষদের বেকারত্ব সমস্যা দূর করার লক্ষ্যে হাংরি পাবনা জেলার নারী উদ্যোক্তাদের নিয়ে এই আয়োজন করে আসছে। নারীদেরকে যদি অর্থনৈতিকভাবে স্বাবলম্বী করা যায় তবে সোনার বাংলাদেশ গড়া সম্ভব হবে। 

চলতি মাসের ৯ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হওয়া মেলা সমাপ্ত হবে আগামী ১৭ ফেব্রুয়ারি শনিবার। প্রতিদিন দুপুর ১২টা থেকে মেলার কার্যক্রম শুরু হয়ে চলছে রাত অবধি। মেলাতে জেলা শহর ছাড়াও বিভিন্ন উপজেলা থেকে দর্শনার্থী ও ক্রেতারা আসছেন। খাদ্য ও ফ্যাশন মেলার এই আয়োজনে ক্রেতারা এক দিকে বাহারি স্বাদের পদের পছন্দের হোমমেড মুখরোচক খাবারের স্বাদ গ্রহণ করছেন অন্যদিকে নিজেদের পছন্দের দেশি পোশাক ও সাজসজ্জার সামগ্রী স্বল্প মূল্যে ক্রয় করতে পারছেন।

সম্পাদক ও প্রকাশক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Design & Developed By Root Soft Bangladesh