মন্দা সিনেমার বাজার

এন ইসলাম

প্রকাশ: ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৯:১০ এএম

নতুন বছরের শুরুতে সিনেমা মুখ থুবড়ে পড়েছে। ফাইল ছবি

নতুন বছরের শুরুতে সিনেমা মুখ থুবড়ে পড়েছে। ফাইল ছবি

নতুন বছরে প্রত্যাশা ছিল সিনেমার বাজার গেল বছরের চেয়ে এবার আরও বেশি ঘুরে দাঁড়াবে। কিন্তু বাস্তবে দেখা গেল তার বিপরীত চিত্র। নতুন বছরের প্রথম মাসে তিনটি দেশি ও একটি আমদানিকৃত বাংলা সিনেমা মুক্তি পেয়েছে। এগুলো হলো ‘কাগজের বউ’, ‘রুখে দাঁড়াও’, ‘শেষবাজি’ ও আমদানিকৃত ‘হুব্বা’। সিনেমাগুলোর কোনোটিই দর্শকের মধ্যে তেমন সাড়া ফেলেনি। মুক্তিপ্রাপ্ত সবগুলো সিনেমাই দর্শক টানতে ব্যর্থ হয়েছে।

গেল বছর বেশ কয়েকটি সিনেমা চলচ্চিত্র ইন্ডাস্ট্রির মোড় ঘুরিয়ে দেয়। বিশেষ করে শাকিব খানের ‘প্রিয়তমা’, ‘আফরান নিশোর ‘সুড়ঙ্গ’ ও মাহফুজ-বুবলীর ‘প্রহেলিকা’ সিনেমা দর্শকের মধ্যে দারুণ সাড়া ফেলে। এছাড়া আরিফিন শুভ অভিনীত বঙ্গবন্ধুর বায়োপিক ‘মুজিব : একটি জাতির রূপকার’ সিনেমাটিও বেশ প্রশংসিত হয়েছে। এ সিনেমাগুলোর বাণিজ্যিক সাফল্যে অনেকে চলচ্চিত্রে সুবাতাস বইছে বলে জানান।

নতুন বছরের শুরুতে সিনেমার এমন মুখ থুবড়ে পড়ায় সিনেমা হল মালিকরা আবারও সিনেমা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করছেন। অনেকের মন্তব্য, জানুয়ারিতে মুক্তি পাওয়া সিনেমাগুলো বাণিজ্যিক বিবেচনায় সময়োপযোগী গল্পের অভাব ও নির্মাণের দুর্বলতার কারণে ব্যবসায়িকভাবে ব্যর্থ হয়েছে। এদিকে ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে কোনো সিনেমা মুক্তি পায়নি। দ্বিতীয় সপ্তাহে এসে দুটি সিনেমা মুক্তি পাচ্ছে। সব মিলে চলতি মাসে বেশ কয়েকটি সিনেমা মুক্তির অপেক্ষায় আছে। এর মধ্যে ৯ ফেব্রুয়ারি মুক্তি পেয়েছে নির্মাতা নুরুল আলম আতিকের সিনেমা পেয়ারার সুবাস। এতে জয়া আহসান, তারিক আনাম খান, আহমেদ রুবেলসহ অনেকে অভিনয় করেছেন। গত বছর মস্কো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে প্রিমিয়ার হয়েছে সিনেমাটির। একই দিন মুক্তি পাবে দ্বীন ইসলাম পরিচালিত অপু বিশ্বাস অভিনীত ‘ট্র্যাপ’। এতে অপুর বিপরীতে থাকছেন তরুণ অভিনেতা জয় চৌধুরী। অপু বিশ্বাস অভিনীত আরেক সিনেমা ‘ছায়াবৃক্ষ’ মুক্তি পেয়েছে ১৬ ফেব্রুয়ারি। চা শ্রমিকদের জীবনের গল্পে সরকারি অনুদানে সিনেমাটি নির্মাণ করেছেন পরিচালক বন্ধন বিশ্বাস। এতে অপু বিশ্বাসসহ আরও অভিনয় করেছেন নিরব, নওশাবা, সুমিত সেনগুপ্ত, শতাব্দী ওয়াদুদ, ডন, এলিনা শাম্মি ও আজম খান।

একই দিন মুক্তি পাবে সরকারি অনুদানে নির্মিত সিনেমা ‘শ্রাবণ জ্যোৎস্নায়’। একই নামে কথাসাহিত্যিক ইমদাদুল হক মিলনের উপন্যাস অবলম্বনে সিনেমাটি নির্মাণ করেছেন আবদুস সামাদ খোকন। এতে মূল দুই চরিত্রে অভিনয় করেছেন দীঘি ও জী আবদুন নূর।

আজ শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) মুক্তির তালিকায় রয়েছে ‘সৈয়দপুরের সৈয়দ সাহেব’ ও ‘তালমাতাল’। ‘মুক্তির অপেক্ষায় থাকা সিনেমাগুলো দর্শক কতটা টানতে পারবে এখন সেটি দেখার বিষয়। তবে কেউ কেউ আগে ভাগেই বলছেন, এ সিনেমাগুলোতে দর্শক টানার মতো তারকা নেই। একটা সময় একটা সিনেমাকে একজন তারকাও অনেকদূর টেনে নিতো। কিন্তু এ সময়ের তারকারা দর্শকের কাছে সেই আস্থা তৈরি করতে পারছে না।’

এদিকে সিনেমা সংশ্লিষ্ট অনেকে বলেন, দেশীয় সিনেমা এখন ঈদ কেন্দ্রিক হয়ে গেছে। এর বাইরের সিনেমাগুলো দর্শক খুব বেশি দেখছেন না। অধিকাংশ সিনেমা তৈরি হচ্ছে ঈদ টার্গেট করে। ওই সময় ভালো সিনেমা আসে। ঈদ ছাড়া যদি ভালো সিনেমা আসত এবং চোখে পড়ার মতো প্রচারের মাধ্যমে দর্শকদের আকৃষ্ট করা যেত, তাহলে সিনেমা ব্যবসা করত। সিনেমা সবসময়ই চলবে, যদি ভালো সিনেমা দেওয়া যায়।

সম্পাদক ও প্রকাশক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Design & Developed By Root Soft Bangladesh