রেকর্ড গড়ে দ্রুততম মানবী টম্পসন

অলিম্পিকে দ্রুততম মানবী এলেইন টম্পসন

অলিম্পিকে দ্রুততম মানবী এলেইন টম্পসন

শেলি অ্যান ফ্রেজারের সামনে ছিল তিন অলিম্পিকে দ্রুততম মানবী হওয়ার হাতছানি। কিন্তু সেই স্বপ্নটা পূরুণ হয়নি তার। টোকিও অলিম্পিকে রেকর্ড গড়ে মেয়েদের ১০০ মিটার স্প্রিন্টে মুকুট পরেছেন ফ্রেজারেরই স্বদেশী এলেইন টম্পসন।

স্বর্ণ ধরে রাখার মিশনে জ্যামাইকান টম্পসন সময় নিয়েছেন ১০ দশমিক ৬১ সেকেন্ড। আর তাতে তিনি ভাঙলেন অলিম্পিকসের ৩৩ বছরের পুরান রেকর্ড। ১৯৮৮ সালের সিউল অলিম্পিকে যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরেন্স গ্রিফিথ-জয়নার ১০ দশমিক ৬২ সেকেন্ড টাইমিং নিয়ে এত দিন অলিম্পিকসের রেকর্ড টাইমিংয়ের মালিক ছিলেন।

১০ দশমিক ৭৪ সেকেন্ড টাইমিং করে রুপা পেয়েছেন বেইজিং ও লন্ডন অলিম্পিকসে দ্রুততম মানবীর মুকুট জেতা ফ্রেজার-প্রাইস। এই ইভেন্টের ব্রোঞ্জ পদকও গেছে জ্যামাইকার ঝুলিতে; ১০ দশমিক ৭৬ সেকেন্ড সময় নিয়ে পেয়েছেন শেরিকা জ্যাকসন।

টোকিওতে ১০০ মিটারে সেরা হতে পারলে অলিম্পিকের ট্র্যাক অ্যান্ড ফিল্ডের ইতিহাসে প্রথম নারী হিসেবে ব্যক্তিগত কোনো এক ইভেন্টে তিনটি সোনা জয়ের কীর্তি গড়তেন ফ্রেজার-প্রাইস। কিন্তু না হওয়ায় অনেকটা হতাশই তিনি।

রৌপ্য নিশ্চিত হওয়ার পর তিনি বলেন, ‘এই মুহূর্তের আবহটা পাগলাটে ধরনের। আমার আবেগ লাগাম ছাড়া। আমি নিশ্চিত, আমি বাড়ি ফিরব এবং ফিরে কাঁদব। অনেকবারই আমি এই পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে গেছি। আজ রাতে যেটা করতে পেরেছি, সেটা নিয়ে আমি আসলেই শিহরিত। আমি রোমাঞ্চিত; কেননা, একজন মা এবং চতুর্থ অলিম্পিকস খেলতে আসা অ্যাথলেট হিসেবে পদকের বেদিতে উঠতে পারা দারুণ সম্মানের ব্যাপার।’

অন্যদিকে স্বর্ণ জেতা টম্পসন বলেন, ‘চোটের সাথে আমাকে লড়তে হয়েছে। বাজে কথা শুনেছি। আমার কাছে মনোযোগ ধরে রাখা, ছন্দ ধরে রাখা ছিল গুরুত্বপূর্ণ। সব ক্ষতি, হারকে আমি মেনে নিয়েছি এবং সেগুলোকে অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজে লাগিয়েছি।’

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //