জয়পুরহাটে গৃহবধূকে ধর্ষণের পর হত্যা: ৭ জনের মৃত্যুদণ্ড

জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলায় গৃহবধূ আরতি রাণীকে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় সাতজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে আদালত।

একই সঙ্গে দণ্ডপ্রাপ্ত দুইজনকে পাঁচ লাখ টাকা এবং পাঁচজনকে এক লাখ টাকা করে জরিমানাও করা হয়।

জয়পুরহাটের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক ড. এ বি এম মাহমুদুল হক আজ মঙ্গলবার এই রায় ঘোষণা করেন।  ট্রাইব্যুনালের পিপি ফিরোজা চৌধুরী এ তথ্য জানিয়েছেন।

সাজাপ্রাপ্তরা হলেন- আক্কেলপুর উপজেলার মারমা গ্রামের সোহেল তালুকদার, দেওড়া সোনারপাড়া গ্রামের আফজাল হোসেন, মজিবর রহমান, দেওড়া গুচ্ছ গ্রামের রাহিন, আজিজার রহমান, সাখিদার পাড়ার ফেরদৌস আলী ও জগতি গ্রামের রুহুল আমীন। 

দণ্ডপ্রাপ্তদের মধ্যে সোহেল ও ফেরদৌসকে পাঁচ লাখ টাকা করে এবং পাঁচজনকে এক লাখ টাকা করে জরিমানাও করা হয়েছে।

মামলার রায় থেকে জানা গেছে, ২০১৬ সালের ৮ অক্টোবর রাতে দেওড়া আশ্রয়ন কেন্দ্রের বাসিন্দা উজ্জ্বল মহন্তের স্ত্রী আরতি রাণীকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে আসামিরা দলবেঁধে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। পরে হাসপাতালে নেয়ার পথে আরতির মৃত্যু হয়। ঘটনার দুইদিন পর ১০ অক্টোবর আরতির স্বামী উজ্জ্বল বাদী হয়ে সাতজনকে আসামি করে আক্কেলপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেন।

মামলায় দীর্ঘ শুনানির পর জয়পুরহাট নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক আসামিদের মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন।

মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার

© 2019 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh