আওয়ামী লীগ সমাজটাকে নষ্ট করে দিয়েছে: ফখরুল

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ সমাজটাকে নষ্ট করে দিয়েছে। আমাদের সন্তানদের ভবিষ্যৎকে নষ্ট করে দিয়েছে। এমন একটা সমাজ তারা তৈরি করেছে, যে সমাজে মানুষ হতে পারবে না। আজ তারা যেটা করছে, সেটা মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধ।

মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) রাজধানীর গুলশানে বিএনপির চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন। 

‘গুম, হত্যার শিকার ও পঙ্গু হওয়া’ নেতা-কর্মিদের পরিবারের সদস্যদের শিক্ষাবৃত্তি প্রদানে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী হেল্প সেল এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

মির্জা ফখরুল অভিযোগ করেন, একদলীয় শাসনব্যবস্থা ও ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করার জন্য প্রথমে সরকার সংবিধান সংশোধন করেছে। মুক্তিযুদ্ধে মূল চেতনাকে ধ্বংস করে দিয়েছে। গণতন্ত্রকে কবর দিয়েছে। রাষ্ট্রের সব যন্ত্রকে ব্যবহার করছে তারা। এর বিরুদ্ধে যারা প্রতিবাদ করেছে, তারা অনেকেই নেই। তাদের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী তুলে নিয়ে গেছে। কাউকে হত্যা করা হয়েছে। অথবা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। গোটা দেশকে নির্যাতনের কারখানা তৈরি করেছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, অসহনীয় একটা পরিবেশ, দম বন্ধ করা পরিবেশ। এই সমাজ কীভাবে এই ধরনের একটা পরিস্থিতি সহ্য করছে, এটাও চিন্তার কথা।

বিএনপির ৩৬ লাখ মানুষ আসামি, একলাখ মামলা, পাঁচশর বেশি গুম হয়েছে বলে দাবি করেন মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, ১৯৭১ সালে এই জন্য মুক্তিযুদ্ধ হয়েছিলো? যেখানে এই রকম সমাজ দেখবো- রাষ্ট্রের নির্যাতনে তরুণ-যুবক পঙ্গু হয়ে যাবে? শিশু পিতাকে হারাবে এই রাষ্ট্রের জন্য? কোন রাষ্ট্র তৈরি করেছি আমরা?

ঢাকার দুটি সিটি নির্বাচন প্রসঙ্গে মির্জা ফখরুল বলেন, যাদের নৈতিকতা নেই, তাদের এই নির্বাচনে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। তিনি ইভিএমেরও সমালোচনা করেন।

সংগঠনটির সভাপতি আবদুল কাদের ভুঁইয়া জুয়েলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য এনামুল হক চৌধুরী, সাবেক ছাত্র নেতা নাজিম উদ্দিন আলম, কামরুজ্জামান রতন, হাবিব উন নবী খান সোহেল, শফিউল বারী বাবু, মামুন হাসান, ছাত্রদলের ফজলুর রহমান খোকন, হেল্প সেলের নাসির উদ্দিন শাওন প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।


মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার

© 2020 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh