ভারতের নতুন মানচিত্র প্রত্যাখ্যান পাকিস্তানের

কাশ্মীরকে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ভাগের পর ভারতের প্রকাশিত মানচিত্রটি প্রত্যাখ্যান করেছে পাকিস্তান।

আজ রবিবার দেশটির পররাষ্ট্র দফতর এক বিবৃতিতে ভারতের প্রকাশিত নতুন এ মানচিত্রকে ‘রাজনৈতিক’ মানচিত্র হিসেবে আখ্যায়িত করে তা প্রত্যাখ্যান করে।

পাকিস্তানের পররাষ্ট্র দফতরের মুখপাত্র ড. ফয়সাল জানান, ভারত জম্মু ও কাশ্মীর অঞ্চল প্রদর্শনের পাশাপাশি গিলগিত-বালতিস্তান এবং আজাদ কাশ্মীরের কিছু অংশকে আঞ্চলিক এখতিয়ারের মধ্যে চিত্রিত করার চেষ্টা করেছে। ২ নভেম্বর ভারতের প্রকাশ করা মানচিত্র ‘ভুল এবং এর কোনো আইনগত ভিত্তি নেই বলেও পাক পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় দাবি করেছে। এটিকে জাতিসংঘের নিরাপত্তা কাউন্সিলের প্রস্তাবসমূহের সম্পূর্ণ লঙ্ঘন হিসেবে দেখছে দেশটি।

ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় শনিবার জম্মু ও কাশ্মীরে সদ্য ঘোষিত কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল এবং লাদাখের সীমানা সম্পর্কিত বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে। বিজ্ঞপ্তিটিতে ভারতের একটি নতুন রাজনৈতিক মানচিত্রও রয়েছে, যার মধ্যে এখন পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

দেশের নতুন কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলো আনুষ্ঠানিকভাবে গঠন হওয়া এবং এগুলোর প্রথম লেফটেন্যান্ট গভর্নরের শপথগ্রহণের দুদিন পর এই বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হলো। গত বৃহস্পতিবার আনুষ্ঠানিকভাবে জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। গত ৫ আগস্ট ৩৭০ ধারা বাতিল করে জম্মু-কাশ্মীরকে দ্বিখণ্ডিত করে জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ পৃথক কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল করার সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেছিল মোদি সরকার। সূত্র: ডন


মন্তব্য করুন

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

© 2020 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh