টোকিও অলিম্পিক স্থগিত হতে পারে, যাচ্ছে না কানাডা

জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে বলেছেন, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসের বিস্তারের কারণে অলিম্পিক গেমসের এবারের আসর স্থগিত করা হতে পারে। গেমস স্থগিতের করা ছাড়া হয়তো তার দেশের আর কোনো উপায় নেই। 

তবে এই আসর বাতিল করার কথা তারা ভাবছেন না।

এর আগে জাপানের পার্লামেন্ট অধিবেশনে আবে বলেছিলেন, বিশ্বের সবচেয়ে বড় এই ক্রীড়া আসরটি পুরোদমেই অনুষ্ঠিত হবে, এ ব্যাপারে তিনি আশাবাদী। 

আর গতকাল রবিবারই প্রথম তিনি অলিম্পিক যথাসময়ে আয়োজন করা সম্ভব না বলে স্বীকার করে বলেন, এ অবস্থাতে অলিম্পিক যথাসময়ে অনুষ্ঠিত হওয়া কঠিন। খেলোয়াড়দের স্বাস্থ্যের বিষয়টি বিবেচনা করে আমাদের এটি স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নিতে হবে। এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত আইওসি নেবে।

২১ মার্চ আইওসি জানিয়েছে, অলিম্পিক নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দিতে তারা চার সপ্তাহ সময় নেবে।

এক বিবৃতিতে সংস্থাটি বলেছে, ২৪ জুলাই অনুষ্ঠেয় অলিম্পিক আসরের বিভিন্ন অপারেশনাল প্ল্যান পর্যালোচনা করে দেখা হবে। কিছু পরিকল্পনা ও আসরটি শুরুর তারিখ পরিবর্তন করা যায় কি না, তা পর্যালোচনা করা হবে।

এই জুলাইয়ে জাপানের রাজধানী টোকিওতে অলিম্পিক অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

এদিকে কানাডা ঘোষণা করেছে, ২০২০ সালের অলিম্পিক ও প্যারালিম্পিক গেমসে তারা তাদের কোনো দল পাঠাবে না। করোনাভাইরাস ঝুঁকির কারণে তারা নিজেদের ক্রীড়াবিদ না পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কানাডিয়ান অলিম্পিক কমিটি, আইওসির প্রতি আহ্বান জানিয়েছে যেন তারা টোকিও গেমস এক বছরের জন্য স্থগিত করে।

কানাডা বলেছে, বিশ্ব একটি স্বাস্থ্য সংকটের মধ্যে রয়েছে, যা খেলাধুলার চেয়ে অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ। -বিবিসি

মন্তব্য করুন

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

© 2020 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh