দিল্লিতে ২০ ঘন্টা বিলম্ব বিমান, এসি বন্ধ, গরমে অজ্ঞান যাত্রীরা

গতকাল বৃহস্পতিবার (৩১ মে) ভারতের রাজধানী দিল্লির তাপমাত্রা ছুঁয়েছিল রেকর্ড ৫২.৯ ডিগ্রী সেলসিয়াস। এমন ভয়াবহ গরমের ভেতর দিল্লিতে এয়ার ইন্ডিয়ার একটি ফ্লাইট ২০ ঘণ্টারও বেশি বিলম্বিত হয়েছে। আর এই দীর্ঘ সময় এসি ছাড়াই যাত্রীদের ফ্লাইটের ভেতরে বসিয়ে রাখা হয়। এতে  তীব্র গরমে ঘণ্টার পর ঘণ্টা বসে থাকতে থাকতে কয়েকজন যাত্রী অজ্ঞান হয়ে যান। খবর এনডিটিভির

আজ শুক্রবার (৩১ মে) ২০ ঘন্টা পর গন্তব্যের উদ্দেশে ছেড়ে যায় বিমানটি। 

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এয়ার ইন্ডিয়ার একটি ফ্লাইটের একজন যাত্রী অভিযোগ করেছেন, গতকাল বৃহস্পতিবার (৩১ মে) আট ঘণ্টারও বেশি বিলম্বের পরে কিছু লোক ফ্লাইটের ভেতরে অজ্ঞান হয়ে পড়েছিল। ফ্লাইটের ভেতরে শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থাও চালু ছিল না।

দিল্লি থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সান ফ্রান্সিসকোগামী এয়ার ইন্ডিয়ার ওই ফ্লাইটটি বৃহস্পতিবার বিকেলে যাত্রা করার কথা থাকলেও ২০ ঘণ্টারও বেশি বিলম্বের পরে সেটি শুক্রবার বেলার ১১টায় ছাড়বে বলে পরে জানানো হয়। 

শ্বেতা পুঞ্জ ভারতের বেসামরিক বিমান পরিবহন মন্ত্রী জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়াকে ট্যাগ করে এক্সে দেওয়া ওই পোস্টে বলেন, যদি বেসরকারিকরণের কোনও গল্প থেকে থাকে যা ব্যর্থ হয়েছে তা হলো এয়ার ইন্ডিয়া। এআই ১৮৩ ফ্লাইটটি আট ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে বিলম্বিত হয়েছে, যাত্রীদের শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা ছাড়াই বিমানে উঠতে বাধ্য করা হয়েছিল, এবং তারপর কিছু লোক অজ্ঞান হয়ে যাওয়ার পরে যাত্রীদের সরিয়ে নেওয়া হয়। ফ্লাইটে এমন কিছু ঘটা অমানবিক।

তিনি আরও বলেন, যাত্রীদের মধ্যে কয়েকজন গরমে অজ্ঞান হয়ে যাওয়ার পর তাদের বিমান থেকে বেরিয়ে যেতে বলা হয়।

এয়ার ইন্ডিয়া এক্স হ্যান্ডেল এর জবাবে বলেছে: যাত্রা বিঘ্নিত হওয়ার জন্য আমরা সত্যিই দুঃখিত। আমাদের দল বিলম্বের বিষয়টি সমাধান করার জন্য সক্রিয়ভাবে কাজ করছে এবং আপনাদের চলমান সমর্থনের প্রশংসা করছে। যাত্রীদের প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদানের জন্য আমরা আমাদের দলকে বলেছি।

উল্লেখ্য, ভারতের রাজধানী দিল্লিতে বর্তমানে ব্যাপক তাপপ্রবাহ চলছে এবং গত বুধবার সেখানকার তাপমাত্রা রেকর্ড ৫২.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াসে পৌঁছেছিল।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2024 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //