মগবাজারে বিস্ফোরণের ঘটনায় মামলা

রাজধানীর মগবাজারে ড্রাম বিস্ফোরণের ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে বিস্ফোরক আইনে গতকাল মঙ্গলবার (২৪ জানুয়ারি) রাতে রমনা মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছে। এতে কারও নাম উল্লেখ না করে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

আজ বুধবার (২৫ জানুয়ারি) সকালে রমনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসান সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান।

জানা যায়, গতকাল মঙ্গলবার সকাল পৌনে ১০টার দিকে বড় মগবাজারের ওয়ারলেস মোড়ে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এতে বেশকয়েকজন আহত হন। ছয়তলা ভবনের নিচে যেখানে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে সেখানে দুইটি স্কুল আছে।

এর মধ্যে একটি সেন্ট ম্যারিস ইন্টারন্যাশনাল স্কুল, অন্যটি রমনা কিডস কিন্ডারগার্টেন স্কুল। তার পাশেই মেট্রো ডিপার্টমেন্ট স্টোর। স্কুলের নিচে একটি ওষুধের দোকান রয়েছে। সেখানে থাকা একটি ড্রাম থেকেই বিস্ফোরণ ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। বিস্ফোরণের শব্দে স্কুলের জানালার কাঁচ ভেঙে পড়ে এবং তা বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে যায়। এতে একজন প্রকৌশলীসহ কয়েকজন আহত হলে ঢাকা মেডিকেলে নেওয়া হয়।

সরেজমিনে দেখা গেছে, ছয়তলা ভবনটি বেশ পুরাতন। এক পাশে প্রথম, দ্বিতীয় এবং তৃতীয় তলায় একটি স্কুল রয়েছে। আর নিচতলায় একটি ফার্মেসি ও সুপারসপ আছে। ভবনের আরেক পাশে আরেকটি কিন্ডারগার্টেন স্কুল রয়েছে। আর বাকি ফ্লোরগুলো মেয়েদের হোস্টেল। বিস্ফোরণের পর পর দুটি স্কুল এবং ফার্মেসি বন্ধ করে দেয়া হয়।

ঘটনার পরপর পুলিশের বিভিন্ন সংস্থা সেখানে কাজ শুরু করে। সিটিটিসি ও সিআইডি ঘটনাস্থল থেকে আলামত সংগ্রহ করে।


ঘটনাস্থলে পরিদর্শনে এসে সিটিটিসি প্রধান আসাদুজ্জামান বলেন, বিস্ফোরিত প্লাস্টিক ড্রামে আগে থেকে বিস্ফোরক দ্রব্য রাখা ছিল। অসাবধানতাবশত তা ফেলে দেওয়ার কারণে বিস্ফোরণটি ঘটে। বিস্ফোরক দ্রব্য কে রেখেছিল বা কীভাবে এখানে এসেছে সেটা উদঘাটনে আমরা কাজ করছি।


সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2023 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //