তীরে এসে তরী ডুবালেন সাকিবরা

চেন্নাইয়ের চিদাম্বরাম স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার (১২ এপ্রিল) আইপিএলের চলতি আসরে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের কাছে ১০ রানে হেরেছে কলকাতা। শুরুতে ব্যাট করে সব উইকেট হারিয়ে ২০ ওভারে ১৫২ রান সংগ্রহ করে মুম্বাই। জবাবে ২০ ওভারে ১৪২ রান তুলতেই সব উইকেট হারায় কলকাতা।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে কলকাতার দুই ওপেনার নিতিশ রানা ও শুভমান গিল তুলেন ৭২ রান। কিন্তু মুম্বাইয়ের স্পিনার রাহুল চাহারের বলে গিল (৩৩) স্ট্যাম্পিংয়ের ফাঁদে পড়ে বিদায় নেন।

দলীয় ৮৪ রানে রাহুল ত্রিপাঠি (৫) এবং অধিনায়ক ইয়ন মরগান (৭) দ্রুত বিদায় নেয়ার পর উইকেটে নামেন সাকিব।

সেট ব্যাটসম্যান নিতিশ ৪৭ বলে ৫৭ রান করে বিদায় নেয়ার দুই বল পরেই বিদায় নেন সাকিব। ওই সময় জেতার জন্য ৫ ওভারে ৬ উইকেট হাতে রেখে মাত্র ৩১ রান দরকার ছিল কলকাতার। স্লগ সুইপ শট খেলতে গিয়ে উইকেট বিলিয়ে ৯ বলে ৯ রান করে সাজঘরে ফেরেন সাকিব।

রাসেল ও দীনেশ কার্তিকও ব্যর্থতার মিছিলে যোগ দেন। রাসেল ১৫ বলে ৯ রান করেন। অন্যদিকে, ১১ বলে ৮ রান করে অপরাজিত থাকেন কার্তিক।

বল হাতে মুম্বাইয়ের রাহুল চাহার ৪ ওভারে ২৭ রান দিয়ে নেন ৪ উইকেট। সমান রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছেন বোল্ট।

এর আগে টস জিতে আগে মুম্বাইকে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানান কলকাতার অধিনায়ক ইয়ন মরগান। শুরুতে ব্যাট করতে নেমে কলকাতার বোলারদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে মাঝারি সংগ্রহ গড়ে মুম্বাই। ব্যাট হাতে সূর্যকুমার যাদব (৫৬) ও অধিনায়ক রোহিত করেছেন ৪৩ রান।

ব্যাট হাতে ব্যর্থ হলেও কলকাতার জার্সিতে ৫০তম ম্যাচ খেলতে নামা সাকিব বল হাতে ছিলেন দুর্দান্ত। নিজের প্রথম ওভারে মাত্র ৪ রান দেন তিনি। এরপর সপ্তম ওভারে ফের বোলিংয়ে এসে দেন ৬ রান। নবম ওভারে এসে ৬ বলে ৬টি সিঙ্গেল দেন। ইনিংসের একাদশ ও নিজের শেষ ওভারে একটি উইকেট নেন সাকিব। ৪ ওভারে তার বোলিং ফিগার দাঁড়ায় ২৩/১, ওভারপিছু রান ৫.৭৫ করে। বাউন্ডারি দিয়েছেন মাত্র ১টি।  

ক্যারিবীয় অলরাউন্ডার রাসেল২ ওভারে ১৫ রান খরচে নেন ৫ উইকেট। কামিন্স ২টি ও ১টি করে উইকেট নেন বরুণ ও প্রসিদ্ধ।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh