চা শ্রমিকদের মজুরি বাড়ল ১৮ টাকা

চা শ্রমিকদের দৈনিক মজুরি ১০২ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১২০ টাকা হয়েছে। এ চুক্তি কার্যকর করে ২০১৯ সালের ১ জানুয়ারি থেকে এখন পর্যন্ত বর্ধিত মজুরি পাবেন চা শ্রমিকরা। আপাতত চা শ্রমিকদেরকে বকেয়া হিসেবে তিন হাজার টাকা করে দেয়া হবে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি মাখন লাল কর্মকার।

বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় কার্যালয় ‘লেবার হাউস’ সূত্রে জানা যায়, গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় শ্রীমঙ্গলে প্রফিডেন্ট ফান্ড অফিসে চা শ্রমিকদের মজুরি বৃদ্ধি নিয়ে চা শ্রমিক ইউনিয়ন নেতাদের ও চা বাগান মালিকপক্ষের সংগঠন বাংলাদেশি চা সংসদের নেতাদের বৈঠক শুরু হয়। টানা ১১ ঘণ্টার বৈঠক শেষে এ সিদ্ধান্ত আসে।

বৈঠকে শারদীয় দুর্গাপূজার আগেই চা শ্রমিকদের দাবি মেনে নিয়ে নতুন মজুরি প্রদানের দাবি জানান নেতারা। বর্তমান চায়ের বাজারের অবস্থা তুলে ধরে তার ওপর ভিত্তি করে নতুন মজুরির সিদ্ধান্ত নেয়ার দাবি তোলেন চা সংসদীয় নেতারা।

বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় কার্যকরি কমিটির সভাপতি মাখন লাল কর্মকার, সহসভাপতি পঙ্কজ কুন্ড ও বালিশিরা ভ্যালি কার্যকরী কমিটির সভাপতি বিজয় হাজরা প্রমুখ। বাংলাদেশি চা সংসদের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন তাহসিন আহমদ চৌধুরীর নেতৃত্বে কয়েকজন।

শারীরিক অসুস্থতার কারণে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন না বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়ন কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক রাম ভোজন কৈরি। তিনি বলেন, ‘এখন চা শ্রমিকরা দৈনিক মজুরি ১০২ টাকার বদলে ১২০ টাকা পাবেন। আর এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে ২০১৯ সালের জানুয়ারি থেকে। এখন আপাতত বকেয়া হিসেবে মজুরির সঙ্গে অতিরিক্ত তিন হাজার টাকা করে চা শ্রমিকরা পাবেন।’

তিনি জানান, গতকাল বৃহস্পতিবার এ নিয়ে একটি প্রাথমিক চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। পূর্ণাঙ্গ চুক্তি স্বাক্ষরিত হলে বর্ধিত উৎসব বোনাস পাবে চা শ্রমিকরা।

উল্লেখ্য, গত ৭ অক্টোবর থেকে মজুরি বৃদ্ধির দাবিতে দেশের সব চা বাগানে প্রতিদিন দুই ঘণ্টা করে কর্মবিরতি পালন করে আসছেন চা শ্রমিকরা।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

© 2020 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh