দিনাজপুরে লোহার খনির সন্ধানে খনন শুরু

দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলায় লোহার খনির সন্ধানে আনুষ্ঠানিকভাবে ড্রিলিং কার্যক্রমের উদ্বোধন করেছে ভূ-তাত্ত্বিক জরিপ অধিদফতর (জিএসবি)।

শুক্রবার (২ এপ্রিল) বিকেল ৪টায় দিনাজপুর জেলার চিরিরবন্দর উপজেলার পুনট্টি ইউনিয়নের কেশবপুরে কার্যক্রমে উদ্বোধন করেন জিএসবির মহাপরিচালক (ডিজি) ড. মহ. শের আলী।

তিনি বলেন, এই ড্রিলিংয়ের মাধ্যমে কেশবপুর গ্রামের মাটির নিচে কী কী সম্পদ আছে, তা দেখা হবে। এতে এলাকাবাসীর ভয়ের কিছু নেই। আমরা পরীক্ষা-নিরীক্ষার তথ্যগুলো সরকারকে সরবরাহ করব- যেনো সেগুলো কাজে লাগাতে পারে। যদি এই গ্রামে মাটির নিচে খনি পাওয়া যায় তাহলে সরকার কাজ করবে। 

মুজিববর্ষের অঙ্গীকার নতুন নতুন খনির আবিষ্কার উল্লেখ করে তিনি বলেন, বাংলাদেশের ভূ-তাত্ত্বিক জরিপ অধিদফতর মুজিববর্ষে দেশের মানুষকে নতুন খনি উপহার দেয়ার কাজ জন্য কাজ করে যাচ্ছে। ইতিমধ্যে বাংলাদেশে ৫টি কয়লা খনির সন্ধান আমরা পেয়েছি। সেই খনিগুলোর কয়লা দিয়ে প্রায় ৫০ বছর পুরো বাংলাদেশে বিদ্যুতের চাহিদা পূরণ করা সম্ভব। এই বিপুল পরিমাণ সম্পদ মাটি থেকে উত্তোলন করতে গেলে দেশের বহু মানুষের জমি নষ্ট হবে। বর্তমান সরকার দেশের মানুষের কথা বিবেচনা করে বাইরে থেকে কয়লা আমদানি করছে।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন চিরিরবন্দর উপজেলা চেয়ারম্যান তারিকুল ইসলাম তারিক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আয়েশা সিদ্দিকা, সহকারী কমিশনার (ভূমি) ইসতিয়াক হাসান, পুনট্রি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. নূর-এ-কামাল।  

এর আগে ২০১৯ সালের ১৯ এপ্রিল জেলার হাকিমপুর উপজেলার ইসবপুর গ্রামে উন্নতমানের লোহার আকরিকের (ম্যাগনেটাইট) খনির কূপ খনন কার্যক্রম শুরু করা হয়। সর্বশেষ ২০২০ সালের ১ জানুয়ারি ড্রিল কার্যক্রমে পাওয়া লোহার খনির সম্ভাব্যতা নিশ্চিত, মজুদ ও পরিধি যাচাইয়ে তৃতীয় পর্যায়ের ড্রিলিং কার্যক্রমের শুরু করে জিএসবি।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh