বাগেরহাটে হত্যাকাণ্ডের জেরে বাড়ি-ঘর ভাংচুর

বাগেরহাটে হত্যাকাণ্ডের জেরে ভাংচুর হওয়া একটি ঘর। ছবি: বাগেরহাট প্রতিনিধি

বাগেরহাটে হত্যাকাণ্ডের জেরে ভাংচুর হওয়া একটি ঘর। ছবি: বাগেরহাট প্রতিনিধি

বাগেরহাটের মোল্লাহাট শাসন গ্রামে আসাদ শেখ হত্যাকাণ্ডের জেরে বাড়ি-ঘর ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটে। 

শনিবার (২৪ এপ্রিল) রাতে শাসন গ্রামের আাবেদ আলী ভূঁইয়া, সাফায়েত ভূঁইয়া ও রজব আলী শেখের বাড়িঘর ভাংচুর ও ঘরের মালামাল লুট করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ক্ষতিগ্রস্ত রজ্জব আলীর স্ত্রী তাসলিমা বেগম বলেন, রাতে হঠাৎ করে স্থানীয় ইউপি সদস্য মামুন শেখ, আজাদ শিকদার, দুলাল শেখ, ইখলাস শেখ, রেন্টু সিকদার, জহিদ শরীফ, ইমদাদ মোল্লা, জাহিদ মোল্লা, মাসুম চৌধুরী, জানিক চৌধুরীসহ ৩০-৪০জন লোক বাড়িতে আসেন। হামাড় দিয়ে বিল্ডিং ভাংচুর করে। দরজা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে ভাংচুর শুরু করে। ঘরে থাকা মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। বিষয়টি কাউকে জানালে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। এমনকি  নারীদের গণধর্ষণের কথাও বলে। শুধু আমাদের ঘর নয়, রাতে প্রতিবেশী আবেদ আলী ভূঁইয়ার টিনের ঘর ও সাফায়েত ভূঁইয়ার ভিল্ডিংও ভাংচুর করেছেন তারা।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছু ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের এক নারী সদস্য বলেন, এক তারিখের হামলা ও ভাংচুরের পরে আমরা মামলা করেছিলাম। ওই মামলায় ২৩ জন আসামি ছিলো। গতরাতে ভাংচুরের ঘটনায়ও আগের আসামিরা অংশগ্রহণ করেছেন। যদি ওই মামলায় পুলিশ আসামিদের গ্রেফতার করতো তাহলে এই ভাংচুর এড়ানো যেত বলে দাবি করেন তিনি।

এর আগে ১ এপ্রিল মোল্লাহাট উপজেলার চুনখোলা ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ডের সদস্য প্রার্থী মামুন শেখ ও কিবরিয়া শরীফের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে মামুন শেখের চাচা শাসন গ্রামের আসাদ শেখ নিহতের জেরে মামুন শেখের সমর্থকদের বিরুদ্ধে শতাধিক বাড়িঘর ভাংচুর, লুটপাট ও হত্যা মামলার আসামিদের উপর হামলার অভিযোগ উঠেছিল। হামলা ও গ্রেফতার এড়াতে ওই গ্রামের অন্তত শতাধিক পরিবারের পুরুষ সদস্যরা এলাকা ছেড়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন।

ইউপি সদস্য মামুন শেখ বলেন, শুনেছি বাড়িঘর ভাংচুর হয়েছে। কিন্তু আমি এসব কিছুই জানি না। আমি এই ভাংচুরের সাথে জড়িত না।

হামলা ও ভাংচুরের বিষয়টি স্বীকার করে মোল্লাহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী গোলাম কবির বলেন, সুনির্দিষ্ট অভিযোগ পেলে আমরা আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh