মাদারীপুরে বিদ্যালয়ের আঙিনায় পানি

৪০টি বিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম নিয়ে শঙ্কা

মাদারীপুরে বিদ্যালয়ের আঙিনায় পানি

মাদারীপুরে বিদ্যালয়ের আঙিনায় পানি

করোনা মহামারির কারণে দীর্ঘদিন বিদ্যালয় বন্ধ থাকার পর স্কুল খুললেও বন্যার কারণে পাঠদানে অনুপযোগী হয়ে পড়েছে পাঁচ উপজেলায় অন্তত ৪০টি প্রাথমিক বিদ্যালয়। এতে আগামীতে শিক্ষা কার্যক্রম নিয়ে শঙ্কিত শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা। 

মাদারীপুর জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের তথ্য মতে, জেলার নিম্নাঞ্চলগুলোতে বন্যার পানি এরই মধ্যে উঠতে শুরু করেছে। জেলার পাঁচ উপজেলায় ৭২২টি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। এর মধ্যে ৪০টি বিদ্যালয়ের শ্রেণিকক্ষে, মাঠে ও যাতায়াতের রাস্তায় পানি উঠেছে। 

মাদারীপুর সদর উপজেলায় ২০৪টি বিদ্যালয়ের মধ্যে ৫টি, শিবচর উপজেলায় ১৮০টি বিদ্যালয়ের মধ্যে ২৬টি, রাজৈর উপজেলায় ১৩৯টির মধ্যে ৬টি এবং কালকিনি ও ডাসার উপজেলায় ১৯৯টির মধ্যে ৩টি বিদ্যালয় বন্যাকবলিত হয়েছে। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি ঝুঁকিপূর্ণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিবচর উপজেলায়। পদ্মা ও আড়িয়াল খাঁ নদীতীরবর্তী হওয়ায় এ উপজেলার ঝুঁকিটা বেশি।

এ ব্যাপারে রাঘদী নাগরদী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সম্রাট হোসেন মোল্লা বলেন, চারপাশ দিয়ে বন্যার পানিতে বিদ্যালয়টি পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। বিদ্যালয়ের মাঠে পাট-খড়ি ও ধানের খড়ের পালা দিয়ে রাখছেন এলাকাবাসী। কিছু বললে আমাদের ওপর চড়াও হয়। যাতায়াতের রাস্তায়ও পানি। এতে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছি আমরা।

শিবচর উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, এ উপজেলায় চর ও নিম্মামাঞ্চল বেশি। যে কারণে ২৬টি বিদ্যালয়ে পানি উঠেছে। আরও কিছু বিদ্যালয় ঝুঁকিতে রয়েছে। পানি বাড়তে থাকলে আরও অন্তত ২০টি বিদ্যালয় পানিতে প্লাবিত হবে। আমাদের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বিষয়টি জানিয়েছি। তারাও কয়েকটি বিদ্যালয় পরিদর্শন করেছে। এর মধ্যে সন্নাসীরচর ইউনিয়নের খাসচর বাচামারা আজাদ বিদ্যালয়টি ভাঙনের মুখে রয়েছে।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //