নোয়াখালীতে লাশ নিয়ে বিক্ষোভ

নোয়াখালীতে স্ত্রীকে আত্মহত্যায় প্ররোচনার দায়ে অভিযুক্ত এসআই স্বামীর বিচার দাবিতে বিক্ষোভ করেছে নিহত গৃহবধূর স্বজনেরা।

অভিযুক্ত উপ-পুলিশ পরিদর্শক (এসআই) মো. মিজানুর রহমান রহমান (৩৬) সে চট্টগ্রাম জেলার আরআরএফ এ সংযুক্ত রয়েছে।

আজ রবিবার (২৭ মার্চ) সকাল ১০টার দিকে নোয়াখালী প্রেসক্লাবের সামনে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। নিহত ফাতেমা আক্তার কলি (২৫) নোয়াখালীর সদর উপজেলার কাদির হানিফ গ্রামের টোকেনের বাড়ির আহছান উল্যার মেয়ে।

এ ঘটনায় রবিবার (২৭ মার্চ) সকালে নিহতের পিতা আহছান উল্যাহ বাদী হয়ে মেয়েকে আত্মহত্যায় প্ররোচনার দায়ে তার স্বামী ও তার বন্ধুসহ পাঁচজনকে আসামি করে চট্টগ্রামের হালিশহর থানায় মামলা দায়ের করেন। 

এর আগে গত শুক্রবার বিকেলের দিকে চট্টগ্রামের হালিশহরের শান্তিবাগের ৮ নং রোডের হক সাহেবের বাসায় এ ঘটনা ঘটে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ২০১৪ সালে পারিবারিকভাবে সুধারাম থানার বিনোদপুর গ্রামের মৃত আবুল কাশেমের ছেলের সাথে বিয়ে হয় কলির। তারা স্বামী-স্ত্রী এক ছেলে এক মেয়েকে নিয়ে চট্টগ্রামের হালিশহরে একটি ভাড়া বাসায় বসবাস করত। তার স্বামী বদ মেজাজী হওয়ায় কারণে অকারণে স্ত্রীকে মারধর করত। এছাড়া তার স্বামীর সাথে তার বন্ধু বাদশার স্ত্রীর অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে বলে সে তার পিতাকে জানায়। এছাড়াও সে অবৈধ পথে অনেক টাকা উপার্জন করত। 

মামলায় আরো উল্লেখ করা হয়, এসব নিয়ে নিহত কলি তার স্বামীকে বুঝানোর চেষ্টা করলে সে তাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও মারধর করত। গত কয়েক মাস আগেও তাকে বেধড়ক পেটায় তার স্বামী। তখন তার মা তাদের চট্টগ্রামের বাসায় গিয়ে বিষয়টি মীমাংসা করে। 

গত শুক্রবার ২৫ মার্চ বিকাল ৫টার দিকে নিহতের স্বামী তার শ্বশুর বাড়ির লোকজনকে জানায় স্ত্রী অসুস্থ হয়ে চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালে ভর্তি আছে। পরে নিহতের পিতা হালিশহর থানায় গিয়ে জানতে পারে তার মেয়ে মারা গেছে। লাশ চমেক হাসপাতালের মর্গে রয়েছে। হাসপাতালের মর্গে থেকে লাশ আনতে গিয়ে নিহত কলির শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে মামলায় উল্লেখ করেন তার পিতা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সুধারাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম জানান, চট্টগ্রামের হালিশহরে নোয়াখালীর এক মেয়ে আত্মহত্যা করে। আত্মহত্যায় প্ররোচনার অভিযোগে তার স্বামীর শাস্তির দাবিতে জেলা শহর মাইজদীতে লাশ নিয়ে নিহতের স্বজনেরা একটি বিক্ষোভ মিছিল হয়েছে।

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //