বিদ্যালয়ের মাঠে বৈদ্যুতিক সরঞ্জাম, খেলাধুলা বন্ধ চার বছর

কুমিল্লা বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড উচ্চ বিদ্যালয়ের খেলার মাঠ দখল করে বৈদ্যুতিক খুঁটি ও ঝুঁকিপূর্ণ সরঞ্জাম রাখার অভিযোগ উঠেছে। অথচ দুর্ঘটনার শঙ্কা নিয়ে স্কুলে আসাযাওয়া করছে পাঁচ শতাধিক শিক্ষার্থী।

কয়েক বছর ধরে বন্ধ বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগীতা। স্কুল কর্তৃপক্ষ বলছে, অনুমতি ছাড়া মালামাল রেখেছে, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। আগামী শীতের শুরুতে সরানো হবে ঝুঁকিপূর্ণ সরঞ্জাম ও বৈদ্যুতিক খুঁটি।

সূত্রমতে, কুমিল্লা বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃক পরিচালিত বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড উচ্চ বিদ্যালয়। লাকসাম রোড সংলগ্ন জাঙ্গালিয়া এলাকার এ বিদ্যালয়ে প্রায় ছয় শ’ শিক্ষার্থী লেখাপড়া করে।

বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী জানায়, সে ২০২০ সালে এ বিদ্যালয়ে ভর্তি হয়েছে। গত তিন বছর এ বিদ্যালয়ে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়নি।

তৃতীয় শ্রেণির এক শিক্ষার্থীর মা হনুফা বেগম বলেন, আমরা আতঙ্কে থাকি কোনো দুর্ঘটনা ঘটে কিনা। শিশুরা স্কুলে আসছে, সকাল বেলা জাতীয় সংগীত গাইবে, ব্যায়াম করবে, খেলবে। এখানে কোনোটাই হয় না। বাচ্চাদের বিকাশের জন্য এ বয়সে খেলাধুলার দরকার। স্কুলের মাঠ বৈদ্যুতিক খুঁটি রাখার স্থান নয়। এটা ছেলে-মেয়েদের খেলার জন্য রাখা হোক।

বিদ্যালয়ের মাঠে বৈদ্যুতিক সরঞ্জাম। ছবি: কুমিল্লা প্রতিনিধি

বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মো. শাহ আলম বলেন, এ বিদ্যালয়ে প্রথম থেকে দশম শ্রেণি পর্যন্ত ৫৫০ জন শিক্ষার্থী অধ্যয়ন করে। করোনার কারণে খেলাধুলার আয়োজন নেই। স্কুল মাঠের বিষয়টি (ঝুঁকিপূর্ণ সরঞ্জাম ও বৈদ্যুতিক খুঁটি) সভাপতি মহোদয়কে আমরা নোট দিয়েছি। এখানে আরেকটি সমস্যা হলো মাঠে পানি থাকে সব সময়। তাই জলাবদ্ধতা সমাধানে মাঠের চারদিকে ড্রেন তৈরির প্রস্তাব রয়েছে।

বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড উচ্চ বিদ্যালয়ের সভাপতি প্রকৌশলী মো. তোফাজ্জল হোসেন প্রমাণিক জানান, কিছু ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান স্কুল মাঠে মালামাল রেখেছে। আমরা বিকল্প স্থান সিলেকশন করেছি। আশাকরি আগামী শীতের মধ্যে সকল সরঞ্জাম ও বৈদ্যুতিক খুঁটি আমরা স্কুল মাঠ থেকে অন্যত্র নিতে পারবো।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //