নীলাভ পাখি কালো ঘাড় রাজন

খাগড়াছড়ির বন সবুজে মোড়ানো। সেগুন, রাবার বা ফলের বাগান অর্থাৎ মনোকালচারের আধিক্যের কারণে কমেছে পাখিদের আবাসভূমি। পাখিদের পছন্দের জায়গা হলো ঘন ঝোপালো জঙ্গল। ছোট টিলার পাদদেশে বা সমতল ভূমি লাগোয়া জঙ্গলে পাখিদের বিচরণ বেশি দেখা যায়। তেমন এক পাহাড়ি জঙ্গলে কালো ঘাড় রাজন পাখি ক্যামেরার লেন্সে ধরা পড়ল। রাস্তার উপর জমা পানি খেতে বারবার জঙ্গল থেকে বের হয়ে আসছে রাজকীয় পাখিটি। চঞ্চল পাখিটিকে ফ্রেমবন্দি করা সহজ নয়! পাহাড়ে ঘন জঙ্গলে এই পাখি মুগ্ধতা ছড়ায়। 

সম্প্রতি খাগড়াছড়ি জেলা সদরের এক সবুজ বনে পাখিটির দেখা মেলে। রাজনের ইংরেজি নাম ব্ল্যাক নেপড মনার্ক। মনার্ক অর্থ রাজন বা রাজ্য, মহারাজা। পাখিটির মাথার উপরে কালো টুপি বা মুকুটের মতো রয়েছে। মুকুটের কারণেই এটি রাজন নাম পেয়েছে। 

দারুণ চঞ্চল পাখিটি কখনো জোড়ায় বা কখনো একা একা চলে। সারাদিন বন বা ঝোপে জঙ্গলে উড়ে বেড়ায়। উড়ে এসে পানিতে ছোঁ মেরে আবার ঝোপে চলে যায়। রাজনের শরীরজুড়ে নীলের আধিক্য বেশি। মাথায় কালো টোপর রয়েছে। পাও নীলচে। লেজতল সাদা। চঞ্চু নীলচে সরু। লম্বায় অনেকটা চড়ুই পাখির মতোই। এদের চোখ কালো। স্ত্রী ও পুরুষ পাখির মধ্যে পার্থক্য রয়েছে। ঠোঁটের উপরে কালো লোমশ রয়েছে। রাজন লম্বায় ১৬ সেন্টিমিটার। এদের ওজন মাত্র ১২ গ্রাম। 

রাজন আমাদের দেশের স্থায়ী বাসিন্দা। বাংলাদেশ ছাড়াও ভারত, পাকিস্তান, নেপাল, শ্রীলংকা, ভুটান, মিয়ানমার ও ইন্দোচীনসহ দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় এর বৈশ্বিক বিস্তৃতি রয়েছে। এদের প্রজনন মার্চ থেকে আগস্ট পর্যন্ত। একসঙ্গে ৩-৪টি ডিম দেয়। পুরুষ ও মেয়ে পাখি মিলেমিশে ডিমে তা দেয়। দুই সপ্তাহে মধ্যে ডিম ফুটে বাচ্চা হয়। এদের প্রধান খাবার কীটপতঙ্গ। আইইউসিএনের মতে কালো ঘাড় রাজন ন্যূনতম বিপদগ্রস্ত প্রাণী হিসেবে অন্তর্ভুক্ত।

খাগড়াছড়ির শৌখিন আলোকচিত্রী সবুজ চাকমা বলেন, পাহাড়ে ঘন জঙ্গলে রাজন পাখি দেখা যায়। এরা বন লাগোয়া সমতল ভূমিতেও বিচরণ করে। তবে খুব চঞ্চল পাখিটি এক জায়গা স্থির থাকে না। সারাদিন তার বিচরণ চলতে থাকে। তবে কালো ঘাড় রাজনসহ পাখি ও বন্যপ্রাণী রক্ষায় বন সংরক্ষণ ও পরিবেশবান্ধব গাছ লাগানোর দাবি জানান তিনি।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //