টাকা পাচার করেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী, অভিযোগ স্বতন্ত্র প্রার্থীর

এবার বরিশাল-৫ (সদর) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীমের প্রার্থিতা বাতিল চেয়ে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ করেছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ। তার বিরুদ্ধে স্ত্রী-সন্তানের নামে বিদেশে বাড়ি এবং আমেরিকায় অর্থ পাচারের অভিযোগ করেন তিনি।

এমনসব অভিযোগে শনিবার (৯ ডিসেম্বর) নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ করেন বরিশাল সিটির সাবেক মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহর সমর্থক ওয়ার্ড কাউন্সিলর গাজী নঈমুল হোসেন লিটু।

বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট একেএম জাহাঙ্গীর এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানিয়েছেন, আমরা চেয়েছিলাম প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ একটি নির্বাচন। অথচ আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আমাদের প্রার্থীকে নিয়ে ষড়যন্ত্র করছে। আমরা বাধ্য হয়েছি তার বিরুদ্ধে আপিল করতে।

তিনি বলেন, নিজের বিরুদ্ধে অভিযোগের শেষ নেই। অথচ তিনি আমাদের প্রার্থীর বিরুদ্ধে অভিযোগসহ নানা ষড়যন্ত্র করছে। এগুলো তারাই করে যাদের পায়ের নিচে মাটি নেই। এখন আইন অনুযায়ী যেটা হওয়ার তাই হবে।

এদিকে নির্বাচন কমিশনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ অভিযোগ করেছেন, আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী জাহিদ ফারুক শামীম তার নির্বাচনী হলফনামায় পোষ্য সন্তানদের সম্পদের বিবরণ এবং স্ত্রীর নামে আমেরিকায় বাড়ি থাকার তথ্য গোপন করেছেন।

এমনকি জাহিদ ফারুক শামীম নিজেই এনআরবিসি ব্যাংকের মাধ্যমে আমেরিকায় টাকা পাচার করেন বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে। যার তথ্য-প্রমাণসহ শনিবার কমিশনে আপিল করা হয়।

অভিযোগ প্রসঙ্গে বক্তব্য জানতে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীমের ব্যক্তিগত মুঠোফোন নম্বরে কল করা হলেও নম্বর বন্ধ পাওয়া যায়।

তবে তার সমর্থক বরিশাল জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি লস্কর নুরুল হক বলেন, কমিশনে আপিল হয়েছে কি-না আমার জানা নেই। বিষয়টি লোকমুখে শুনেছি।

কমিশনে এমন আপিলের আইনত সুযোগ নেই দাবি করে তিনি বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থী তার হলফনামায় আমেরিকায় স্ত্রীর নামে থাকা বাড়ির তথ্য গোপন করেছেন। এ বিষয়ে আমরা রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে অভিযোগ করেছিলাম। কিন্তু রিটার্নিং অফিসার আমাদের অভিযোগ রিজেক্ট করেছেন। এ কারণে আমরা নির্বাচন কমিশন ট্রাইব্যুনালে আমরা আপিল করেছি।

তিনি বলেন, আমাদের প্রার্থীর বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ থাকলে সেটা আগে রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে করার কথা ছিল। সেটা না করে সরাসরি কমিশনে কীভাবে আপিল করে, বিষয়টি আমার বোধগম্য নয়।

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2024 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //