খাঁচা ও কফিন থেকে দূরে

অভিধানের খাঁচা ভেঙে কাদাখোঁচা পাখিগুলো বেরিয়ে এসেছে...
তাদের বলছি, হোহ্-হো, তোমরা স্বাধীন!

এইবার কৌপীন, কবচ খুলে
হয়ে ওঠো অ-ব্যাকরণিক, উড়ালপ্রিয়, রাগী

পুত্র-কলত্রসহ সোনা ঝিকমিক বালির সৈকতে গিয়ে বসো
তোমাদের মুক্ত দেখে কেঁপে উঠুক ব্যাকরণ-পোত

প্রেতাত্মা ও অভিধান সবখানে ওত পেতে আছে
তাদের বায়স-চোখ জুলজুল তোমাদের দিকে

ঝিল্লি ও ভ্রমররূপী গুপ্তচর
চেয়ে আছে তোমাদের দিকে

পরিদের রঙিন পাজামাগুলি উড়ছে বাতাসে
তাতে বহু রতিদাগ, বহুতর পুংকেশর লেগে
সেসব পাজামা দাঁতে ছিঁড়তে চায় হাঁ-মুখ কামট

পতাকা ও কামদণ্ড সে এখন উঁচিয়ে রেখেছে
...অতএব, সামলে রেখো তোমাদের শিশ্ন, রতিকূপ

অভিধানের তামাদি-লোল জিভখানা যেন
পাজামার গিঁট খুলে ভেতরে না ঢোকে

তোমরা স্বাধীন পাখি
তোমাদের জন্য তাই হেসে উঠছে আমাদের হাসি

তোমাদের জন্য ধীরে অদ্ভুত, অর্বুদ মেরুরাত
দোলনা বিছিয়ে দিল কোবাল্ট সাগরে;
পুরুষ তিমিটি একা সাঁতরে গেল তিমিনীর দিকে
খাঁচা ও কফিন খুলে এবার তাহলে
তোমরাও ঢুকে পড়ো জাফরান ঘুমে

ঘুম থেকে জেগে দ্যাখো কী আছে সেখানে
আর তোলো সাধ্যমতো কিচির মিচির

...নিষিদ্ধ খাঁড়ির দিকে হেঁটে চলো সরু, লম্বা পায়ে
বড়দিনের রাতে, অন্ধকারে
পাকাচুল বুড়া পাদ্রিদের
শিশ্নের উত্থানে ভীত গির্জায় বালক;
ওকে গিয়ে মুক্ত করি চলো
কপিধ্বজ রথে চড়ে এবার অভ্রমে যাব, চলো

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2024 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //