ঘরে ফিরলেন ঘরের ছেলে

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। ফাইল ছবি

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। ফাইল ছবি

১২ বছর পর সব জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে ওল্ড ট্রাফোডে ফিরেছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। কয়েক ঘণ্টার চরম নাটকীয়তার শেষে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা দিয়ে জানিয়েছে, ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ‘ঘরে’, অর্থাৎ ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডেই ফিরেছেন।

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের দলটি বিবৃতিতে লিখেছে, ‘ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড আনন্দের সঙ্গে নিশ্চিত করছে যে, ব্যক্তিগত চুক্তি, ভিসা ও স্বাস্থ্যপরীক্ষা সফলভাবে শেষ করার শর্তসাপেক্ষে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর দলবদলের জন্য আমাদের ক্লাব জুভেন্টাসের সঙ্গে সমঝোতায় পৌঁছেছে।’ 

দলবদলের খবরাখবর নিয়মিত জানানো সাংবাদিক ফাব্রিজিও রোমানো জানিয়েছেন, রোনালদোর জন্য জুভেন্টাসকে প্রাথমিকভাবে ২ কোটি ইউরোর পাশাপাশি কিছু শর্ত পূরণসাপেক্ষে আরও ৩০ লাখ ইউরো দেবে ম্যান ইউ।

এখন বাকি রইল রোনালদোর সঙ্গে ম্যান ইউর আনুষ্ঠানিক চুক্তি। সেটি এখনো চূড়ান্ত হয়নি বলে ক্লাবের পক্ষ থেকে কিছু আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হয়নি। 

তবে গার্ডিয়ান জানিয়েছে, ভিসা পেলে ও স্বাস্থ্য পরীক্ষায় উতরে গেলেই ম্যান ইউর সঙ্গে দুই বছরের চুক্তি সই করবেন রোনালদো। ম্যান ইউর পক্ষ থেকে চুক্তির প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে আগেই, তাতে রোনালদোর সম্মতিও আছে।

তিন বছর আগে রিয়াল ছেড়ে দেওয়া রোনালদোর আরও এক বছরের চুক্তি ছিল জুভেন্টাসের সঙ্গে। শেষ বছরটি তুরিনে থেকে যাওয়া-না যাওয়া নিয়ে নানান গুঞ্জন শোনা গেলেও কোনোটিই দৃঢ় ছিল না। তার দলবদলের আলোচনা রিয়াল মাদ্রিদ ও পিএসজি ঘুরে দু’দিন আগে ম্যানসিটিতে গিয়ে স্থির হয়। দীর্ঘদিন হ্যারি কেনের অপেক্ষায় থেকে বিফল হওয়া সিটি রোনালদোর এজেন্টের সঙ্গে দুই বছরের চুক্তি ও ১৫ মিলিয়ন ইউরো বেতনও চূড়ান্ত করে ফেলে। তবে পর্তুগিজ অধিনায়কের জন্য ট্রান্সফার ফি দিতে রাজি ছিল না পেপ গার্দিওলার দল।

২০০৩ সালে স্পোর্তিং লিসবন ছেড়ে তরুণ রোনালদো ওল্ড ট্রাফোডে এসেছিলেন। ২০০৯ পর্যন্ত ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে ২৯২ ম্যাচে ১১৮ গোল করেছিলেন পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড, জিতেছিলেন একটি চ্যাম্পিয়নস লিগ ও তিনটি প্রিমিয়ার লিগসহ ৯টি শিরোপা।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //