জাতিসংঘে ২৪ সেপ্টেম্বর ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ফাইল ছবি

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ফাইল ছবি

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতিসংঘের ৭৬তম সাধারণ অধিবেশনে ভাষণ দেবেন আগামী ২৪ সেপ্টেম্বর শুক্রবার অপরাহ্নে। এটি হবে তার জাতিসংঘে ১৮তম ভাষণ। এই বিশ্বসংস্থার ইতিহাসে আর কোন দেশের প্রেসিডেন্ট/প্রধানমন্ত্রীর এমন ভাগ্য হয়নি বলে জাতিসংঘের সচিবালয় উল্লেখ করেছে। 

এছাড়া, জাতিসংঘ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন কার্যক্রমে অসাধারণ অবদানের জন্যে শেখ হাসিনার মত আর কেউই এত বেশী অ্যাওয়ার্ড লাভে সক্ষম হননি। 

শেখ হাসিনার ঝুঁড়িতে নেতৃত্বে বিচক্ষণতায় মানুষের জীবনমানের উন্নয়নে সাফল্য প্রদর্শনের ২৭টিরও অধিক অ্যাওয়ার্ড রয়েছে। 

সংশ্লিষ্ট সূত্র নিশ্চিত করেছে, সাধারণ অধিবেশনে ভাষণের পর নিউইয়র্কে কর্মরত সাংবাদিকদের নিয়ে প্রেস কনফারেন্সেও তিনি ভার্চুয়ালেই মিলিত হবেন। প্রবাসীদের একটি সমাবেশেও ভার্চুয়ালেই বক্তব্য দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সে সময় তিনি যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের নতুন নেতৃত্বের নামও ঘোষণা করতে পারেন বলে অনেকে মনে করছেন। 

২৫ সেপ্টেম্বর শনিবার তার ওয়াশিংটন ডিসির উদ্দেশ্যে নিউইয়র্ক ত্যাগের কথা। সেখানে চিকিৎসার ফলোআপ ছাড়াও মার্কিন প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গের সাথে ভার্চুয়ালে বৈঠকের সম্ভাবনা রয়েছে। 

উল্লেখ্য, করোনার কারণে একেবারেই নগন্যসংখ্যক প্রতিনিধি দল নিয়ে বাংলাদেশের নেতা শেখ হাসিনা ১৯ সেপ্টেম্বর দুপুরে জেএফকে এয়ারপোর্টে অবতরণ করবেন। বিশেষ ফ্লাইটে নিউইয়র্কে আসার পর স্বাস্থ্যবিধি হান্ড্রেড পার্সেন্ট মেনে অনুষ্ঠিত সাধারণ অধিবেশনে অংশ নেবেন তিনি। সেখানে বিশ্বনেতারা সশরীরে উপস্থিত হয়ে নিজ নিজ বক্তব্য উপস্থাপনের সুযোগ পেলেও সদস্য দেশসমূহের ডেস্কেও বসবেন সীমিতসংখ্যক কূটনীতিক/পদস্থ কর্মকর্তারা। গণমাধ্যম কর্মীদের গতি-বিধিও পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণে নেয়া হয়েছে। জাতিসংঘের টিভি থেকে ফুটেজ এবং ওয়েবসাইট থেকে বিস্তারিত তথ্য জানতে হবে সাংবাদিকদেরকে। এদিকে, সংশ্লিষ্ট দফতর থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন প্রতিনিধি দলে একমাত্র মন্ত্রী হিসেবে আসছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে এ মোমেন। এছাড়াও থাকবেন বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্র প্রধানমন্ত্রীর তথ্য-প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়, অটিস্টিক আন্দোলনের বিশ্বনেতা সায়মা ওয়াজেদ হোসেন পুতুল এবং সংসদ সদস্য আব্দুস সোবহান গোলাপ। প্রধানমন্ত্রীর দফতরের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারাও আসছেন। পররাষ্ট্রসচিব মাসুদ বিন মোমেন এবং আরো কয়েকজন কর্মকর্তা আসবেন জাতিসংঘের গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকের সমন্বয়সাধনের জন্য। 

শেখ হাসিনার ৭৪তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে ২৮ সেপ্টেম্বর ভার্জিনিয়া এবং নিউইয়র্কে প্রবাসীরা নানা কর্মসূচি গ্রহণ করেছেন। কেক কাটা ছাড়াও শেখ হাসিনার বিশ্বনেতা হয়ে উঠার আলোকে একটি সমাবেশ হবে নিউইয়র্কে। বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের যুক্তরাষ্ট্র শাখার এ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হবে কুইন্সে ওয়ার্ল্ডফেয়ার মেরিনা মিলনায়তনে। প্রধান অতিথি থাকবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে এ মোমেন। 

বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের সেক্রেটারি আব্দুল কাদের মিয়া আরো জানিয়েছেন, ‘মাদার অব হিউম্যানিটি’ শেখ হাসিনার জন্মদিনের এ সমাবেশে দেশ ও প্রবাসের বিশিষ্টজনেরাও অংশ নেবেন। 

এদিকে, রবিবার অপরাহ্নে নিউইয়র্কে শেখ হাসিনার আগমনের সমর্থনে স্টেট আওয়ামী লীগ এক র‌্যালি করেছে ডাইভার্সিটি প্লাজায়। হোস্ট সংগঠনের সেক্রেটারি শাহীন আজমলের নেতৃত্বে এতে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের নেতা কাজী কয়েস, যুক্তরাষ্ট্র জাসদের নেতা নূরে আলম জিকো, স্টেট আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মনির হোসেন, স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতা দরুদ মিয়া রনেল প্রমুখ।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2021 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //