পল্টনে পুলিশের সাথে হরতাল সমর্থকদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া

নিত্যপণ্যের লাগামহীন মূল্যবৃদ্ধি প্রতিরোধ এবং গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানির দাম বাড়ানোর তৎপরতা বন্ধের দাবিতে বাম গণতান্ত্রিক জোটের ডাকা অর্ধদিবস হরতালে রাজধানীর পল্টন মোড়ে পুলিশের সাথে হরতাল সমর্থকদের সংঘর্ষ হয়েছে।

এসময় হরতাল সমর্থকদের উদ্দেশ্যে পুলিশকে জলকামান ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করতে দেখা গেছে। হরতাল সমর্থকরাও পুলিশের দিকে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করেন।

এছাড়া পুলিশ ও হরতাল সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটছে।

আজ সোমবার (২৮ মার্চ) ভোর ৬টায় শুরু হওয়া এ হরতাল চলে দুপুর ১২টা পর্যন্ত। বেলা ১১ টার পর পুলিশ লাঠিচার্জ ও জলকামান ছিটিয়ে নেতাকর্মীদের পল্টন মোড় থেকে ছত্রভঙ্গ করে দেওয়ার চেষ্টা করে।

মতিঝিল-পল্টন জোনের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি) আব্দুল আহাদ বলেন, হরতালের নামে রাস্তা অবরোধ করে সকাল থেকেই নেতাকর্মীরা যান চলাচলে বিঘ্ন ঘটায়। পরে তাদের সরে যেতে বললে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে পুলিশের ওপর হামলা ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। পরে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করে।

এদিকে প্রায় চার ঘণ্টা পর শাহবাগ মোড় থেকে অবরোধ তুলে নিয়েছেন বাম গণতান্ত্রিক জোটের ছাত্রসংগঠনের নেতা-কর্মীরা। হরতাল পালনের অংশ হিসেবে আজ সকাল পৌনে ৭টার দিকে নেতা-কর্মীরা শাহবাগ মোড়ে টায়ার জ্বালিয়ে ও ব্যানার-পোস্টারে অগ্নিসংযোগ করে সড়কে ব্যারিকেড তৈরি করেন।

পরে প্রায় চার ঘণ্টা পর সকাল সাড়ে ১০টার দিকে শাহবাগ থেকে নেতা-কর্মীরা অবরোধ তুলে নেন। অবরোধ তুলে নেওয়ার পর সংশ্লিষ্ট সড়কগুলোয় যান চলাচল শুরু হয়।

নিত্যপণ্যের ঊর্ধ্বগতির প্রতিবাদে গত ১১ মার্চ সকালে পুরানা পল্টনে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির (সিপিবি) কেন্দ্রীয় কার্যালয় মুক্তিভবনের হলরুমে এক সংবাদ সম্মেলনে হরতাল কর্মসূচি ঘোষণা করে দলটি।

বাম জোটের ডাকা অর্ধদিবস হরতালে সমর্থন জানিয়েছে বিএনপি ও প্রগতিশীল ছাত্র জোট। হরতালের সমর্থনে কর্মসূচিও ঘোষণা করে প্রগতিশীল ছাত্রজোট।

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //