ICT Division

জুমার দিনের ফজিলতপূর্ণ আমল

জুমার দিন মুসলমানদের সাপ্তাহিক ঈদের দিন। এ দিন মুসলমানদের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। এ দিনে ইসলামী ইতিহাসে বড় বড় ও মহৎ কিছু ঘটনা ঘটেছে। আল্লাহ তায়ালা নিজেই জুমার দিনের উপর গুরুত্বারোপ করেছেন।

দিনটি যেমন ফজিলতপূর্ণ তেমনি এ দিনের নামাজ-ইবাদতও ফজিলতপূর্ণ। হাদিসের এ দিনের অনেক ফজিলত ঘোষণা করা হয়েছে। দিনটি জুড়ে রয়েছে অনেক সুন্নত আমল। 

সুন্নত আমলগুলো হলো:

১. ফজরের নামাজে সুরা সাজদা ও সুরা ইনসান পড়া।

২. গোসল করা।

৩. উত্তম পোশাক পরা।

৪. সুগন্ধি ব্যবহার করা।

৫. আজানের সাথে সাথে (আগে-ভাগে) মসজিদে যাওয়া।

৬. সুরা কাহফ পড়া।

৭. বেশি বেশি দরুদ পড়া।

৮. মসজিদে প্রবেশ করেই দুই রাকাত সুন্নত নামাজ পড়া।

৯. মসজিদে প্রবেশ করে খতিবের দিকে মুখ করে বসা।

১০. ইমামের খুতবা শোনার জন্য চুপচাপ অপেক্ষা করা।

১১. খুতবা শুরু হলে নিরব থেকে মনোযোগের সাথে তা শোনা।

১২. জুমার নামাজ সুরা আলা ও সুরা গাশিয়া দিয়ে আদায় করা।

১৩. জুমার নামাজ সম্পন্ন হলে ২/৪ রাকাত নফল নামাজ পড়া।

১৪. জুমার দিন বেশি বেশি দোয়া করা। বিশেষ করে বাদ আসর থেকে মাগরিব পর্যন্ত সময়ে এ দোয়া করা।

জুমার দিনের বিশেষ ও গুরুত্বপূর্ণ একটি আমল হচ্ছে দোয়া করা। জাবের ইবনে আব্দুল্লাহ (রা.) থেকে বর্ণিত হাদিসে প্রিয় নবী (সা.) বলেন, জুমার দিনের বারো ঘণ্টার মধ্যে একটি বিশেষ মুহূর্ত এমন আছে যে, তখন কোনো মুসলমান আল্লাহর নিকট যে দোয়া করবে আল্লাহ তা কবুল করেন। (আবু দাউদ, হাদিস : ১০৪৮)

সাম্প্রতিক দেশকাল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Ad

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //